• " />

     

    অক্সেনফোর্ডের 'আর্মগার্ড'!

    ধেয়ে আসছে বল। মুহুর্তের মধ্যেই। ব্যাটসম্যানের 'প্রোটেকটিভ গিয়ার' এর অভাব নেই, উইকেটকিপারেরও। 'ক্লোজ-ইন' ফিল্ডারের আত্মরক্ষার জন্যও থাকে শিন-প্যাড, হেলমেট। কিন্তু আম্পায়ারের? তাঁদের অবস্থানটাও তো খুব একটা নিরাপদ নয়! 

    বিগ ব্যাশ লিগে জেরার্ড অ্যাবুড পরেছিলেন হেলমেট। তবে ব্রুস অক্সেনফোর্ডের পন্থাটা একটু আলাদা। তিনি পরেন 'আর্ম-গার্ড'! র‍্যাকেটের মতো দেখতে এই গার্ড তাঁর 'নন-সিগন্যালিং' হাতে থাকে, মানে বাঁহাতে। যাতে বল আসলে 'ব্লক' করতে পারেন! 

    প্রথম পরেছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ভারতের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ম্যাচে। এরপর আইপিএলে। আজ এজবাস্টনে ইংল্যান্ড ও শ্রীলঙ্কার দ্বিতীয় ওয়ানডেতেও। 

     

     

    প্রশ্ন উঠেছে অবশ্য অক্সেনফোর্ডের এই 'গার্ড'-এ বল লাগলে কী হবে তা নিয়েও! ব্যাটসম্যানের গিয়ারে বল আটকে গেলে সাধারণত ডেডবল হয়, নন-স্ট্রাইকিং ব্যাটসম্যানের গিয়ারে লেগে ক্যাচ উঠলে আবার সম্ভাবনা থাকে আউটের। অ্যান্ড্রু সাইমন্ডস একবার আউট হয়েছিলেন এভাবে। সাইমন্ডসের শট মাইকেল ক্লার্কের প্যাডে লেগে উঠেছিল, মিড-অনে দাঁড়িয়ে থাকা ফিল্ডার ধরেছিলেন ক্যাচ! 

    উইকেটকিপারের বাড়তি হেলমেটে লাগলে আবার হয় 'পাঁচ রান পেনাল্টি'। তবে আপাতত স্কাই স্পোর্টসকে টেলিভিশন আম্পায়ার নিশ্চিত করেছেন, অক্সেনফোর্ডের গার্ডে লাগলে বল ডেড হবে না।

    মানে অক্সেনফোর্ড নিরাপদ, কিন্তু এর কারণে খুব একটা নিরাপদ নন ব্যাটসম্যানরা! 

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন