• বাংলাদেশ-আফগানিস্তান-জিম্বাবুয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজ
  • " />

     

    • বাংলাদেশ-আফগানিস্তান-জিম্বাবুয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজ

    'নতুন' সাকিব, 'আলাদা' ডমিঙ্গো

    ছুটি এবং হজ্ব শেষে দেশে ফিরেছেন কাল গভীর রাতে। চুল স্বাভাবিকভাবেই আরও ছোট করে ফেলেছেন, আরও যেন খানিক শুকিয়েছেনও। একটু অন্যরকম সাকিব আল হাসানকেই দেখা গেল আজ। তবে মুখে সেই চেনা মুচকি হাসিটা লেগে ছিল। নতুন কোচ রাসেল ডমিঙ্গোর সাথে পরিচয়পর্বও হয়ে গেল। এরপর বেশ খানিকটা সময় নিয়ে বসলেন অধিনায়ক, কোচ, ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান আকরাম খান এবং দুই নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন ও হাবিবুল বাশার। সামনের সিরিজ নিয়ে নতুন কোচের পরিকল্পনায় আরও একবার নিজেদের সন্তুষ্টির কথা জানিয়েছেন আকরাম।

    আফগানিস্তানের সঙ্গে টেস্ট সিরিজ সামনে রেখে জাতীয় দলের অনুশীলন শুরু হয়ে গেছে এর মধ্যেই। ফিটনেস শেষে আজই শুরু হয়েছে ফিল্ডিং আর কন্ডিশনিং, আর প্রথম দিন সতীর্থেরা মাঠে পেয়েছেন সাকিবকে। ভ্রমণক্লান্তি থাকার পরও আজ নেটে নেমে গেছেন সাকিব, ব্যাটিং করেছেন কিছুক্ষণ। এরপর নতুন কোচসহ ক্যাম্পে থাকা সবার সঙ্গে একটা নাতিদীর্ঘ বৈঠকও হয়ে গেছে। এর মধ্যে অবশ্য অনেকে যে যার মতো নেটে ব্যাট-বলে ঝালাইও করে নিলেন।

    এরপর অধিনায়ক আর কোচ চলে এলেন দুইতলায় আকরাম খানের কক্ষে। সেখানে বেশ কিছুটা সময় একসঙ্গে বসেছেন, নতুন সিরিজের আগে এটা অবশ্য রেওয়াজই। এর মধ্যে বিসিবির পরিচালকও এসেছিলেন কজন, নতুন কোচের সঙ্গে তাদেরও কথা হলো। ডমিঙ্গো এমনিতেই বেশ আমুদে, আজ যেন সারাক্ষণই হাসছিলেন। পরে অবশ্য আকরাম খানের কথা থেকে তার খুশির কারণ জানা গেল,  

    ‘প্রথমত বিশ্বকাপের পর সিলেক্টর, ক্যাপ্টেন, কোচ আড্ডা মারার জন্য বসেছি। সামনের সিরিজের পরিকল্পনা এসব নিয়ে বেশ বিস্তারিত কথা হয়েছে। বেশ সফল একটা আড্ডা হয়েছে। মনে হয়েছে, কোচের চিন্তাভাবনা খুব ভালো। অভিজ্ঞতাও আছে। দেখেন, আমার নিজেরও তো অনেক দিনের অভিজ্ঞতা। খেলোয়াড় হিসেবে, অধিনায়ক হিসেবে, কোচ হিসেবে... বোর্ডের দায়িত্বে থেকেও অনেকের সাথে আমার কথা হয়েছে, অনেক কোচের সঙ্গে পরিচয় হয়েছে। তো ওকে আমার আলাদা মনে হয়েছে। ওকে যদি হেল্প করতে পারি, বাংলাদেশের ক্রিকেটের শক্তি আরও বাড়বে।’

    কিন্তু কোচের কোন ব্যাপারটা বেশি মনে ধরেছে? আকরাম দেশের বাইরে খেলা নিয়ে ডমিঙ্গোর ভাবনার কথাই বললেন, ‘আমরা হোমের চেয়ে বেশি অ্যাওয়ের কথা চিন্তা করছি। কোন ব্যাটসম্যান হোমে বেশি ভালো, অ্যাওয়েতে বেশি ভালো... এসব নিয়ে অনেক দিন ধরে সে চিন্তা করছে। সেটা আমার কাছে ভালো লেগেছে। নির্বাচকদের সঙ্গে তাদের পরিকল্পনা নিয়েও আলাপ হয়েছে।’

    ডমিঙ্গোর মধুচন্দ্রিমা আপাতত ভালোই চলছে!