• বিপিএল ২০১৯
  • " />

     

    • বিপিএল ২০১৯

    মাশরাফির দুষ্টুমি এবং রুশোর মুগ্ধতা

    বৃহস্পতিবার ম্যাচ ছিল না বিপিএলের। সকালে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের পর অনুশীলন করতে এলো রাজশাহী কিংস ও ঢাকা ডায়নামাইটস। দুই দল যখন অনুশীলন শেষ করে ফেলেছে, মাঠে ঢুকল রংপুর রাইডার্স। ফর্মে থাকা রংপুরের দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান রাইলি রুশো মুখোমুখি হয়েছেন সংবাদমাধ্যমের। এমন সময় পাশ দিয়ে যাচ্ছিলেন রংপুর অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। সামলাতে পারলেন না মজা করার লোভ। সাংবাদিকদের মধ্যে দাঁড়িয়ে থেকে পরে সামনের দিকে গিয়ে তাকিয়ে রইলেন রুশোর দিকে। যারা খেয়াল করেছেন, তাদের সবাই হাসি চাপার চেষ্টা করছেন তখন। খানিক পর রুশোর দৃষ্টি আকর্ষণ করলে তিনিও মজা করে বললেন, ‘তোমার কোনো প্রশ্ন আছে নাকি বন্ধু?’ মাশরাফি অবশ্য আর ‘বিপদে’ ফেললেন না, চলে গেলেন অনুশীলনে।

    কদিন আগেই নির্বাচিত হয়েছেন সংসদ সদস্য। বিপিএলে অধিনায়ক করছেন প্রথম আসর থেকেই, জাতীয় দলে এই মুহূর্তে শুধু ওয়ানডেতে অধিনায়ক থাকলেও দলের অভিভাবক হিসেবে তাঁর নামই আসে। তবে জুনিয়র, সমবয়সী বা সিনিয়রদের সঙ্গে মজা করতে বাঁধে না তাতে।  রুশোও আজ তা মনে করিয়ে দিলেন, ‘সে তো অবিশ্বাস্য একজন অধিনায়ক। সবার সঙ্গেই অনেক মজা করে। আমি প্রথম বার ওর অধীনে খেলছি। দলের সবার সঙ্গে তার চমৎকার সম্পর্ক্‌ পারফরম্যান্স দিয়েই সামনে থেকে নেতৃত্ব দিচ্ছে। আমি ওর সঙ্গে প্রতিটা মুহূর্তই উপভোগ করছি।’

    প্রথম ম্যাচ হারের পর খুলনা ও কুমিল্লাকে হারিয়ে দারুণভাবেই ঘুরে দাঁড়িয়েছে রংপুর। পরের ম্যাচটা এখন পর্যন্ত অপরাজিত ঢাকা ডায়নামাইটসের সঙ্গে। রুশো জয়ের ধারাটা ধরে রাখতে চান, ‘ঢাকা তো কঠিন একটা প্রতিপক্ষ। কাজটা সহজ হওয়ার কোনো কারণ নেই। এখানে সব দলই কঠিন প্রতিপক্ষ। তবে আমরা দুই ম্যাচ জেতার যে ছন্দে আছি, সেটা ধরে রাখতেই চাইব। এখন পর্যন্ত সবকিছু ঠিকঠাকই হচ্ছে আমাদের। আশা করি কালকের ম্যাচেও সেটা হবে।’

    আগের ম্যাচটা ৬৩ রান তাড়া করে জিতলেও সেজন্য ১২ ওভার খেলতে হয়েছে রংপুরকে। রুশো অবশ্য জয়টি বড় করে দেখছেন, ‘দেখুন, প্রতিদিন তো কেউ ৬৩ রানে অলআউট হবে না। আর ওই ধরনের উইকেটে ব্যাট করাও সহজ নয়। আমরা  আগে জয়টাই নিশ্চিত করতে চেয়েছি, বাকিটা পরে।’

    এখন পর্যন্ত ১০৩ রান নিয়ে জাজাইয়ের পরেই আছেন রুশো। গেইলদের ছাপিয়ে আপাতত তাঁর ওপরেই ভরসা করছে রংপুর।