• বাংলাদেশের ভারত সফর
  • " />

     

    ভারত সফরের টি-টোয়েন্টি স্কোয়াডে আরাফাত সানি, আল-আমিন চমক

    ভারত সফরের বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি স্কোয়াডে চমক হয়ে এসেছেন বাঁহাতি স্পিনার আরাফাত সানি ও পেসার আল-আমিন হোসেন। নতুন মুখ নাঈম শেখের সঙ্গে ফেরানো হয়েছে এ দুজনকে। 

    সানি ও আল-আমিন- দুজনই জাতীয় দলের হয়ে সর্বশেষ খেলেছিলেন ২০১৬ সালে, আইসিসি ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টিতে। এদের সঙ্গে জাতীয় দলের স্কোয়াডে ফিরছেন তামিম ইকবাল, আফগানিস্তান টেস্ট ও ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজে বিশ্রামে ছিলেন তিনি। সঙ্গে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি স্কোয়াডের পরের ধাপ থেকে বাদ পড়া সৌম্য সরকারকেও ফেরানো হয়েছে। এদেরকে জায়গা করে দিয়েছেন তাইজুল ইসলাম, নাজমুল হোসেন শান্ত, সাব্বির রহমান ও রুবেল হোসেন।

    শেষ বিপিএলে রাজশাহী কিংসের হয়ে খেলে ১২ ম্যাচে ১৬ উইকেট পেয়েছিলেন সানি,  দেশীয় স্পিনারদের মধ্যে তার চেয়ে বেশি উইকেট ছিল শুধু সাকিব আল হাসানের। সিলেট সিক্সারসের হয়ে আল-আমিন খেলেছিলেন ৫ ম্যাচ, পেয়েছিলেন ৩ উইকেট। এরপর প্রিমিয়ার ডিভিশন টি-টোয়েন্টিতে ৩ ম্যাচে নিয়েছিলেন ৩ উইকেট। সাম্প্রতিক সময়ে এইচপি বা ‘এ’ দলের মতো কোনও সেট-আপেও ছিলেন না দুজনের কেউই। 
     


    তাদের সঙ্গে জাতীয় দলের স্কোয়াডে এসেছেন নাঈম। ২০ বছর বয়সী বাঁহাতি ব্যাটসম্যান নাঈম সম্প্রতি ছিলেন শ্রীলঙ্কা সফরে, ‘এ’ দলের হয়ে। সেখানে তিনটি লিস্ট ‘এ’ ম্যাচে দুটি ফিফটি করেছিলেন তিনি। এর আগে গত বিপিএলে ৫ ম্যাচ খেলেছিলেন তিনি ঢাকা ডায়নামাইটসের হয়ে। দল ঘোষণার দিনই বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান জানিয়েছিলেন, এখন থেকে নতুন ‘এক্সপেরিমেন্ট’ করবেন তারা, আগামী বছর ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টি সামনে রেখে। এর আগে ত্রিদেশীয় সিরিজে খেলা আফিফ হোসেন, লেগস্পিনার আমিনুল ইসলাম বিপ্লবরাও জায়গা ধরে রেখেছেন। এর মাঝে বিপ্লব ফাইনালে ছিলেন না আঙুলের চোটের কারণে। 

    সেই ত্রিদেশীয় সিরিজেই টি-টোয়েন্টি অভিষেক হয়েছিল তাইজুলের, তবে আরাফাত সানির কাছে জায়গা হারালেন তিনি দুই ম্যাচ খেলার পরই। তাইজুলের মতো অভিষেক হওয়া শান্তও বাদ পড়েছেন ২ ম্যাচে ১৬ রান করার পর। আর ৩ ম্যাচে সর্বোচ্চ ২৪ রানের ইনিংস খেলা সাব্বির জায়গা হারিয়ে ফেলেছেন, রুবেল বাদ পড়েছেন কোনও ম্যাচ না খেলেই। 

    সাইফ উদ্দিনসহ স্কোয়াডে আছেন চারজন পেসার, সাকিব-সানি-বিপ্লবের সঙ্গে স্পিনে অপশন হিসেবে থাকবেন মোসাদ্দেক হোসেন, মাহমুদউল্লাহরা। 

    ভারত সফরে দুই টেস্টের আগে তিনটি টি-টোয়েন্টি খেলবে বাংলাদেশ। ৩, ৭ ও ৯ নভেম্বর যথাক্রমে দিল্লী, রাজকোট ও নাগপুরে হবে ম্যাচগুলি।