• ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ
  • " />

     

    অনুশীলনের জন্য খেলোয়াড়দের বাধ্য করবে না ইউনাইটেড

    জুনে প্রিমিয়ার লিগ আবারও মাঠে ফেরানোর জন্য বেশ তোড়জোড় চলছে। এই মাসের শেষদিকে পুরোদমে অনুশীলন শুরু করার কথা রয়েছে। বেশ কয়েকটি ক্লাব সরকারী বিধান মেনে এরই স্বল্প পরিসরে অনুশীলন শুরুও করে দিয়েছে। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডও খেলোয়াড়দের নিয়ে অনুশীলন করার কথা ভাবছে। তবে দলটির ম্যানেজার ওলে গানার সোলশার সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, অনুশীলনে অংশ নিতে খেলোয়াড়দের বাধ্য করবে না তার ক্লাব, খেলোয়াড়রা নিরাপদবোধ করলেই কেবল অনুশীলন অংশ নেবেন।

    ম্যানচেস্টার সিটির সার্জিও আগুয়েরো এবং চেলসি ডিফেন্ডার আন্টোনিও রুডিগারসহ বেশ কয়েকজন খেলোয়াড় গত কয়েক সপ্তাহে অনুশীলনে ফেরার বিষয়ে নিজেদের ভয় এবং শঙ্কার কথা জানিয়েছেন। খেলোয়াড় এবং স্টাফদের শতভাগ স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত না হলে যাতে অনুশীলন শুরু না হয় সেজন্য সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছিলেন তারা।


    স্কাই স্পোর্টসের সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে খেলোয়াড়দের শঙ্কার যৌক্তিকতা তুলে ধরে ইউনাইটেডের সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন সোলশার, “কেউ অনুশীলনে অংশ না নিলে কোনও সমস্যা নেই। প্রতিটি খেলোয়াড়কে ফেরার জন্য মানসিকভাবে তৈরি হওয়ার সময় দিতে হবে। আমরা কাউকে বাধ্য করতে পারি না। খেলোয়াড়রা তাদের শঙ্কার কথা জানিয়েছে, আর বিশেষজ্ঞরা প্রতি মুহূর্তেই সেই শঙ্কাগুলো কীভাবে কাটিয়ে ওঠা যায় তার উপায় বাতলে দিচ্ছেন।”

    প্রিমিয়ার লিগ স্থগিত হওয়ার আগে টানা ১১ ম্যাচে অপরাজিত ছিল সোলশারের ইউনাইটেড, যার মাঝে নগর প্রতিদ্বন্দ্বী সিটির সঙ্গে দুটি এবং চেলসির বিপক্ষে একটি জয়ও রয়েছে। তবে করোনার ফলে সৃষ্ট স্থবিরতায় সেই ফর্মে আঁচ পড়ার সম্ভাবনা থাকলেও আরেক দিক দিয়ে সুবিধাই হয়েছে সোলশারের। দলের অন্যতম দুই খেলোয়াড় পল পগবা এবং মার্কাস রাশফোর্ড চোট কাটিয়ে চলতি মৌসুমে আবারও মাঠে নামার জন্য তৈরি করছেন নিজেদের, সোলশারও সাক্ষাৎকারে বিষয়টি তুলে ধরেছেন, “এই বিরতিতে ঐ দুজনকে সেরে ওঠে নিজেদের ম্যাচ ফিট করে তোলার জন্য যথেষ্ট সময় পেয়েছে।”