• ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ
  • " />

     

    জোন্সকে নিয়ে মজা করে শেষে ক্ষমা চাইল টুইটার

    ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ডিফেন্ডার ফিল জোন্সকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হাস্যরস হয় প্রায়ই। বেশির ভাগ সময়ই সেটা  রক্ষণের সময় তার বিচিত্র মুখভঙ্গি নিয়ে। তবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে টুইটারের যুক্তরাজ্যের অ্যাকাউন্ট ‘@টুইটারইউকে’ থেকে জোনসকে নিয়ে বুধবার একটি পোস্টের পর সেটি নিয়ে বেশ সমালোচনা শুরু হয়। আর তাই সেই পোস্টটি সরিয়ে নিয়ে জোনসের কাছে ক্ষমা চেয়েছে টুইটার।


    টুইটে ফিল জোন্সের চেয়ে ভালো একজন ডিফেন্ডারের নাম জানতে চাওয়া হয়েছিল। তবে অনেক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারী এটিকে ইউনাইটেড ডিফেন্ডারের জন্য সরাসরি মানহানিকর বলে মনে করে এর প্রতিবাদ জানান। আর এরপরই জোনসের কাছে ক্ষমা চেয়ে টুইটটি মুছে দিয়েছে টুইটার। 

    টুইটারের এক মুখপাত্র ভুল স্বীকার করে টুইট সরিয়ে নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন, “ আমাদের কাউকে আঘাত করার উদ্দেশ্য ছিল না। আমরা ভুল বুঝতে পেরেই সাথে সাথে টুইটটি সরিয়ে নিয়েছি।”

    বেশ কয়েক মাস ধরেই ইউনাইটেডের হয়ে মাঠে নামার সুযোগ পাচ্ছেন না জোন্স। করোনার বিরতির পর জুনে খেলা শুরু হলেও তাকে আর ইউনাইটেডের জার্সি গায়ে দেখা যায়নি। ইউরোপা লিগের স্কোয়াডেও তাকে রাখেননি ওলে গানার সোলশার।

    ১৭ আগস্ট জার্মানির কোলোনে ইউরোপা লিগের সেমিফাইনালে সেভিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামবে ম্যান ইউনাইটেড। 

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন