• আইপিএল ২০২১
  • " />

     

    এবার সত্যিই দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ফিরছেন ডি ভিলিয়ার্স?

    এবার সত্যিই দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ফিরছেন ডি ভিলিয়ার্স?    

    এ বছর দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলতে আগ্রহী ২০১৮ সালে সব ধরনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়া এবি ডি ভিলিয়ার্স। এ নিয়ে এই আইপিএলের সময়ই হেড কোচ মার্ক বাউচারের সঙ্গে আলোচনার কথা আছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। 

    রবিবার কলকাতার বিপক্ষে ডি ভিলিয়ার্স খেলেছেন আরেকটি দুর্দান্ত ইনিংস, ৩৭ বছর বয়সী তার ফুরিয়ে যাওয়ার প্রশ্নই আসছে না তাই। অবসরের পর ২০১৯ বিশ্বকাপের আগেও ডি ভিলিয়ার্সের ফেরা নিয়ে কথা হয়েছিল, তিনি নিজেও ইতিবাচক ছিলেন এ ব্যাপারে। তবে শেষ পর্যন্ত তাকে বিবেচনা করেননি নির্বাচকরা। 

    গত বছর শেষ পর্যন্ত কোভিড-১৯ এর কারণে স্থগিত হয়ে যাওয়া টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে আরেকদফা আলোচনা উঠেছিল ডি ভিলিয়ার্সের ফেরা নিয়ে। সেবার বাউচার বলেছিলেন, শুধু দলের শক্তিমত্তা বাড়াতে পারলেই ডি ভিলিয়ার্স আসবেন, অন্য কোনো কারণে নয়। 

    এবার ভারতের মাটিতে হতে যাওয়া এ টুর্নামেন্টের আগে ডি ভিলিয়ার্স আরেকবার জানিয়েছেন তার ফেরার সম্ভাবনা নিয়ে আলোচনার কথা, “আইপিএল চলার মাঝে কোনো এক সময়ে আমাদের কথা বলার কথা আছে। তবে হ্যাঁ, এর আগেই আলোচনা করেছি।” 

    “গত বছরই আমাকে (বাউচার) বলেছিল, যে আমি উৎসাহী কিনা। আমি জবাব দিয়েছিলাম যে অবশ্যই। আইপিএলের শেষদিকে আমার ফর্ম, ফিটনেস বিবেচনায় এসব ভেবে দেখব আবার আমরা।” 

    তবে শুধু নিজের নয়, দলের অবস্থাও ভাবতে হবে, ডি ভিলিয়ার্স মনে করিয়ে দিয়েছেন সেটিও, “আবার দলের কী পরিস্থিতি- কারা পারফর্ম করছে একটা সময়জুড়ে, সেগুলোও তো তাকে দেখতে হবে। যদি আমার জন্য শেষ পর্যন্ত জায়গা না হয়, তাহলে তাই হবে। সবকিছু মিলে গেলে তো ব্যাপারটা চমৎকার হবে। বাউচির (বাউচার) সঙ্গে আইপিএলের শেষদিকে কথা বলার অপেক্ষায় আমি, এবং এরপরই পরিকল্পনা করব।” 

    অবশ্য আপাতত দক্ষিণ আফ্রিকার অবস্থা সুবিধার নয়, সম্প্রতি পাকিস্তানের বিপক্ষে ৩-১ ব্যবধানে নিজেদের মাটিতে টি-টোয়েন্টি সিরিজ হেরেছে তারা। বাউচারও জানিয়েছেন, আইপিএলের আগে ডি ভিলিয়ার্সের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি। 
     

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন