• সিরি আ
  • " />

     

    মোসেস, ইয়াংদের পর এরিকসেনকেও দলে ভেড়াল ইন্টার

    ভিক্টর মোসেস, অ্যাশলিই ইয়াং- এর পর ক্রিশ্চিয়ান এরিকসেনকে দলে ভেড়াচ্ছে ইন্টার মিলান। টটেনহাম হটস্পার থেকে মাত্র ১৭ মিলিয়ন পাউন্ডে ডেনমার্ক মিডফিল্ডারকে দলে নেওয়ার প্রক্রিয়াও প্রায় শেষ করেছে নেরাজ্জুরিরা। এই সংবাদ লেখার সময় মিলানে মেডিকেল পরীক্ষা দিচ্ছেন এরিকসেন। এর পরই আনুষ্ঠানিক ঘোষনা আসার কথা ইন্টারের পক্ষ থেকে।

    এরিকসেনের ইন্টার মিলান যাত্রা অবশ্য কিছুটা চমক জাগানোই। বিশেষ করে এর আগে তার ব্যাপারে আগ্রহী ক্লাবগুলোর ভেতোর রিয়াল মাদ্রিদের কথাও শোনা গিয়েছিল। সেটাও গত গ্রীষ্মের কথা। সাত মাসের মাথায় সিরি আর দুইয়ে থাকা দলে যোগ দিলেন এরিকসেন।


    এই মৌসুমের শুরু থেকেই চুক্তি নিয়ে টটেনহামের সঙ্গে এরিকসেনের বনিবনা হচ্ছিল না বলেই ইংলিশ সংবাদমাধ্যমগুলো জানাচ্ছিল। মৌসুমের শুরুর দিকে একাদশ থেকেও বেশ কয়েকবার বাদ পড়েছিলেন এরিকসেন। সাড়ে ছয় বছর নর্থ লন্ডনের ক্লাবের হয়ে মোট ৩০৫ ম্যাচ খেলে ৬৯ গোল ও ৮৯ টি অ্যাসিস্ট করেছেন এই মিডফিল্ডার। প্রিমিয়ার লিগের অন্যতম সেরা মিডফিল্ডারও বিবচেনা করা হত তাকে।

    শীতকালীন দলবদলের বাজারে ব্যস্ত ইন্টার মিলান  ম্যানেজার আন্তোনিও কন্তেকে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে ভালোভাবেই। অন্তত বাইরের অবস্থা দেখে সেটা আঁচ করাই যায়। চেলসিতে রেকর্ড গড়ে লিগ জেতার মৌসুমে ভিক্টর মোসেসকে উইংব্যাক হিসেবে খেলিয়ে দারুণ ফল পেয়েছিলেন কন্তে। তাকেই আবার দলে ভিড়িয়েছেন ইন্টার কোচ। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে ব্রাত্য হয়ে পড়া অ্যাশলি ইয়াং প্রথম ম্যাচে নেমেই অ্যাসিস্ট করেছেন দলের হয়ে। মিডফিল্ডে যে সৃজনশীলতার অভাব ইন্টারকে ভোগাচ্ছিল সেটাও এখন সমাধান হওয়ার কথা এরিকসেনের আগমনে। 

    তবে দলবদলের বাজার ভালো গেলেও মাঠের খেলায় সাফল্য ধরা দিচ্ছে না ইন্টারের। গতকাল টানা দ্বিতীয়বারের মতো সিরি আতে ড্র করে পয়েন্ট হারিয়েছে তারা। আর সব মিলিয়ে এ বছর লিগে খেলা ৪ ম্যাচের তিনটিতেই ড্র করেছে ইন্টার। চ্যাম্পিয়নস লিগেও গ্রুপ পর্ব পেরুনো হয়নি কন্তের দলের। তাই ইন্টারকে এবার বিবেচনা করা হবে আসলে সিরি আর পারফরম্যান্স দিয়েই। যদিও গতকাল নাপোলির কাছে হেরে পয়েন্ট হারানোয় জুভেন্টাসের সঙ্গে ইন্টারের পয়েন্ট ব্যবধান আর বেড়ে ছয় হয়নি। আপাতত জুভেন্টাসের চেয়ে তিন পয়েন্টে পিছিয়ে আছে ইন্টার।