• সিরি আ
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    পর্তুগালে আইসিউ প্রতিষ্ঠায় অর্থের যোগান দিচ্ছেন রোনালদো

    পর্তুগালের দুইটি হাসপাতালে নিবিড় পর্যবেক্ষে কেন্দ্র বা ইন্টেনসিভ কেয়ার ইউনিট প্রতিষ্ঠা করতে অর্থের যোগান দিচ্ছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। তার সঙ্গে অর্থ যোগানদাতা হিসেবে আছেন তার এজেন্ট হোর্হে মেন্ডেসও। করোনাভাইরাস বৈশ্বিক মহামারীতে রুপান্তর হওয়ার পর সঙ্কটাবস্থা সামাল দিতে এগিয়ে এছেন এই দুই পর্তুগজি।

    পর্তুগালের নর্থ লিসবন ইউনিভার্সিটি হসপিটালে দুইটি ও পোর্তোর সান আন্তোনিও হসপিটালে একটি নতুন করে আইসিউর উইং যোগ করা হচ্ছে। ইএসপিএন তাদের নিজেদের বরাত দিয়ে বলছে, এই আইসিউ ইউনিটগুলোর নামকরণ হবে ফুটবল সংশ্লিষ্ট দুইজনের নামে।


    "ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো ও ব্যবসায়ী হোর্হে মেন্ডেজ হাসপাতালে দুইটি আইসিউ নির্মানের জন্য অর্থ দান করছেন। প্রতিটি উইংয়ে সবরকম যন্ত্রাংশ থাকবে ও একটিতে ১০টি করে বেড রাখা হচ্ছে।" - সিএইচএলইউএন (পর্তুগালের ওই দুইটি হাসপাতালের নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ) ইএসপিএনকে নিশ্চিত করেছে এই খবরের সত্যতা। 

    এই ইউনিটগুলোতে সব কী ধরনের সুবিধা পাওয়া যাবে সেসবও নিশ্চিত করেছে তারা, "এই ইউনিট দুটোর নাম হবে ইউসিআই হোর্হে মেন্ডেজ ও ইউসিআই ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। কোভিড-১৯ এর ভয়াবহাতা কেটে গেলে এই দুইটি ইউনিটিই আইসিউ হিসেবে ব্যবহার হবে। আগে এখানে মোট ৩১ টি বেড ছিল, এখন সে সংখ্যা বেড়ে ৫১ হচ্ছে।"

    পর্তুগালে মার্চের ২৪ তারিখ পর্যন্ত ২০৬০ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এর ভেতর প্রাণ হারিয়েছেন ২৩ জন। গত বৃহস্পতিবার দেশটিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে জরুরী অবস্থা জারি করেছে পর্তুগাল সরকার।

    রোনালদোর জুভেন্টাসের ৩ সতীর্থ এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। দানিয়েলে রুগানি, ব্লেইস মাতুইদি ও পাউলো দিবালারা এখন সেরে ওঠার প্রক্রিয়ায় আছেন। এর আগে গেল সপ্তাহে স্পেনের সংবাদমাধ্যম এএস দাবি করেছিল নিজের হোটেলকে করোনা রোগীদের সেবার জন্য হাসপাতালে রুপান্ত করছেন রোনালদো। কিন্তু সেটি কেবলমাত্র গুজব বলেই রোনলাদোর মালিকানাধীন সেই হোটেল দাবি করেছিল তখন।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন