• সিরি আ
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    সানচেজকে ফ্রিতেই ছেড়ে দিল ম্যান ইউনাইটেড


    ইন্টার মিলানের প্রধান নির্বাহী আর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ ওলে গানার সোলশার কালই নিশ্চিত করেছিলেন খবরটি। আজ ইন্টার আনুষ্ঠানিক এক বিবৃতিতে নিশ্চিত করেছে, অ্যালেক্সিস সানচেজকে পাকাপাকিভাবে দলে নিচ্ছে তারা। সেজন্য ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে কোনো টাকা দিতে হচ্ছে না তাদের, ইউনাইটেড ফ্রিতেই ছেড়ে দিয়েছে সানচেজকে।

    সানচেজের ডিলটা বেশ কিছুদিন ধরেই মাথ্যব্যথা হয়ে ছিল ইউনাইটেডের জন্য। ২০১৮ সালে অনেক আলোচনার পর ম্যান সিটিকে টপকে সানচেজকে নিয়েছিল ইউনাইটেড। কিন্তু সময়টা ভালো কাটেনি ওল্ড ট্রাফোর্ডে এই চিলিয়ানের। শুরুটা ভালো হলেও এরপর ফর্ম হারিয়েছেন, সব প্রতিযোগিতা মিলে ৪৫ ম্যাচ করেছেন ৫ গোল। গত মৌসুমে শেষ পর্যন্ত তাকে ধারে ইন্টারে পাঠায় ইউনাইটেড। সানচেজের সঙ্গে লুকাকু আর অ্যাশলে ইয়াংকেও ইউনাইটেড থেকে নিয়েছে ইন্টার।

    করোনা-বিরতির পর ইন্টারের হয়ে ভালোই করছিলেন সানচেজ। শোনা যাচ্ছিল সানচেজকে রেখে দিতে চায় ইন্টার, কিন্তু সমস্যা ছিল তার বেতন নিয়ে। ইউনাইটেডে সপ্তাহে ৪ লাখ পাউন্ড পেতেন সানচেজ, বছরে যা প্রায় ২ কোটি পাউন্ডের বেশি। এই মোটা অংকের বেতন নিয়ে বাঁধছিল গোল। ইউনাইটেড চাইছিল সানচেজকে ছেড়ে দিতে, কিন্তু এত বেতন দিয়ে তার ওপর ট্রান্সফার ফিসহ তাকে নিতে আগ্রহী ছিল না তেমন কোনো ক্লাব। ইন্টার শেষ পর্যন্ত তাকে টাকা ছাড়াই কিনে নিয়েছে, ইউনাইটেড ২০২২ পর্যন্ত চুক্তিটা শেষ করে দিয়েছে আগেই। যার মানে বাকি দুই বছরের জন্য সানচেজের বেতন বাবদ ৪ কোটি পাউন্ড বাঁচিয়েছে ইউনাইটেড। তবে এরপরও ইউনাইটেডকে কিছুটা ক্ষতি মেনেই সানচেজকে ছেড়ে দিতে হচ্ছে। সেই সঙ্গে ফাঁকা হয়েছে ইউনাইটেডের ৭ নম্বর জার্সি। আর তিন বছরের চুক্তিতে ইন্টারেও তুলনামূলক কম বেতনেই যাচ্ছেন এই চিলিয়ান। সবকিছু ঠিক থাকলে ইউরোপা লিগেই তার সঙ্গে দেখা হতে পারে পুরনো ক্লাবের। এই মৌসুমে ইন্টারের হয়ে সব প্রতিযোগিতায় ২৯ ম্যাচে ৪ গোল করেছেন সানচেজ। 

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন