• বিশ্বকাপ বাছাই
  • " />

     

    ক্যাম্প বন্ধের আগে আগে স্বস্তির খবর পেল বাংলাদেশ দল

    বাংলাদেশ দলে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা এক লাফে কমে দাঁড়িয়েছে ৭ এ। তৃতীয় ও চতুর্থ দফায় ৩৬ জন খেলোয়াড় ও স্টাফের পরীক্ষার পর আক্রান্ত ৭ জনের সঙ্গে আরও ৩ জনকে রাখা হচ্ছে পর্যবেক্ষণে। আর খেলা পিছিয়ে যাওয়ায় ক্যাম্প শুরুর এক সপ্তাহের মাথায় আগামীকাল ১৩ আগস্ট থেকেই আবার বন্ধ হয়ে যাচ্ছে ক্যাম্প।

    এমএস বাবলু, টুটুল হোসেন বাদশা, রবিউল হাসান, ফয়সাল আহমেদ ফাহিম, শহিদুল আলম, আনিসুর রহমান ও বিশ্বনাথ ঘোষ করোনায় আক্রান্ত। তৃতীয় ও চতুর্থ দফার টেস্টে একবার পজিটিভ ও একবার নেগেটিভ আসায় রায়হান হাসান, রাকিব হাসান ও রিয়াদুল হাসান রাফিকে রাখা হচ্ছে আলাদা পর্যবেক্ষণে। এর আগে ৩৬ জনের ভেতর ১৯ জনেরই করোনা পরীক্ষার ফল এসেছিল পজিটিভ। পরে ১০ আগস্ট নতুন করে একই দিনে আলাদা দুইটি প্রতিষ্ঠানের সাহায্যে বাফুফে খেলোয়াড় ও স্টাফদের করোনা ভাইরাস পরীক্ষা করানোর সিদ্ধান্ত নেয়। সবশেষ ফল তাই কিছুটা স্বস্তি হয়েই এসেছে বাংলাদেশের জন্য।

    বিশ্বকাপ ও এশিয়া কাপ বাছাইয়ের ম্যাচ দ্বিতীয়বারের মতো স্থগিত হয়ে যাওয়ায় গাজীপুরের অনুশীলন ক্যাম্পও বন্ধ ঘোষণা করা হচ্ছে। কোচ জেমি ডের আসার কথা ছিল আগস্টের ১৭ তারিখ। আপাতত তিনিও আর আসছেন না বাংলাদেশ।

    এ বছর সবশেষ জানুয়ারিতে আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছিল বাংলাদেশ। আপাতত এই বছর আর আন্তজার্তিক ম্যাচ খেলার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে জেমি ডের দলের।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন