• লা লিগা
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    কিক অফের আগে: 'ক্লান্ত' মেসির সারায় তরুণ ফেলিক্সের শুরু?

    কবে কখন

    অ্যাটলেটিকো-বার্সেলোনা, ওয়ান্ডা মেট্রোপলিটানো

    ২২ নভেম্বর, রাত ১.৪৫টা

    ফেসবুক লাইভ

     

    লিওনেল মেসির শরীর আর মন, দুইটিই আর এখন সম্ভবত চলতে চাইছে না। চার পাশের এত নেতিবাচকতার তীরের আঘাত সইতে সইতে তিনি পরিশ্রান্ত, নিজের স্বীকার করেছেন তিনি এখন ‘ক্লান্তপ্রাণ এক’। যে ন্যু ক্যাম্পকে করেছেন জীবনের ধ্রুবতারা, সেখানেই এখন আর মন বসতে চাইছে না তার। অনেকটা আত্মসমর্পণের সুরেই স্বীকার করেছেন, সব সমস্যার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে থাকতে থাকতে তিনি ক্লান্ত। সেই ক্লান্ত মেসির সামনেই একজন, যিনি অপেক্ষা করছেন সামনের মঞ্চটা নিজের করে নেওয়ার।

    জোয়াও ফেলিক্স মাত্র কদিন আগেই পা দিয়েছেন একুশ বছরে। সামনে পড়ে আছে অনেকটা সময়। তবে মেসি-রোনালদোর  কাছ থেকে ব্যাটনটা যে তার কাছে আসতে পারে, সেই সম্ভাবনাটা দেখাচ্ছেন এখন নিয়মিতই। অ্যাটলেটিকো কেন তাকে ১২৭ মিলিয়ন ইউরো দিয়ে নিয়ে এসেছে, এই মৌসুমে সেই প্রমাণ নিয়মিতই দিয়ে যাচ্ছেন।

    ফেলিক্সের জন্য চাপ অবশ্য নতুন কিছু নয়। গত মৌসুমে যখন লা লিগায় এসেছিলেন, তখনও তার আগে টিন-এজের সুবাস লেগে আছে। পর্তুগালের মঠো পথ থেকে স্পেনের রাজপথে এসে প্রথমে একটু তাল হারিয়ে ফেলেছিলেন ঠিক। প্রথম মৌসুমে প্রত্যাশাটা ঠিকমতো তাই পূরণ হয়নি। এবার ঠিকই সেই রাজপথে ছুটিয়ে দিয়েছেন নিজের ফেরারি। এই মৌসুমে লা লিগার দ্বিতীয় সর্বোচ্চ পাঁচটি গোল তার, সেখানে অবশ্য তার সঙ্গে আছেন ক্লাবেরই সতীর্থ লুইস সুয়ারেজ। তবে গোল আর অ্যাসিস্ট তো আর সবকিছু বলে না। মাঠের খেলা যেমন বলছে ফেলিক্স সম্ভবত এখন লা লিগার সেরা খেলোয়াড়।

    ফেলিক্সের জন্য অ্যাটলেটিকো ঠিক প্লাটফর্ম কি না, সেটা নিয়ে দ্বিধায় ছিলেন অনেক ফুটবলবোদ্ধা। ডিয়েগো সিমিওনে ঠিক আক্রমণাত্মক ফুটবলের ভক্ত নন, বরং ডিফেন্স আঁটোসাঁটো করে কাউন্টার অ্যাটাকের দিকেই তার মন বেশি। তার দর্শন একজন সৃষ্টিশীল আর ক্লাসিক ঘরানার প্রতিভার জন্য কতটা মানানসই, সেটা নিয়ে সংশয় ছিল। সেই সংশয় সিমিওনে আর ফেলিক্স, দুজনেই এবার জয় করার আভাস দিচ্ছেন। সিমিওনের অ্যাটলেটিকোতে ডান থেকে সরে এবার বাঁয়ে আর সেন্টারের মাঝে অনেকটা সেকেন্ড স্ট্রাইকারের ভূমিকায় খেলছেন ফেলিক্স। তার চেয়েও বড় কথা, ফোকাস আর দায়িত্বজ্ঞানে আগের চেয়ে অনেক বেশি পরিণত। অ্যাটাকের পাশাপাশি রক্ষণ করছেন নিচে নেমে, প্রতি ম্যাচেই সুযোগ করে দিচ্ছেন একাধিক গোলের। কদিন আগে পর্তুগালের হয়ে ম্যাচে তো তার ভলি থেকে রোনালদোই তালি দিয়ে প্রশংসায় ভরিয়ে দিয়েছেন। ক্লাবের হয়ে ফেলিক্সের এই দুর্দান্ত ফর্মের পুরস্কার পাচ্ছে অ্যাটলেটিকোও, লিগে এখন ১৭ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে অ্যাটলেটিকো। শীর্ষে থাকা সোসিয়েদাদের চেয়ে দুইটি ম্যাচ কম খেলে পিছিয়ে আছে তিন পয়েন্টে।

    আর ওদিকে মেসির সঙ্গে ধুঁকছে বার্সাও। ১১ পয়েন্ট নিয়ে আট নম্বরে আছে কোমানের দল, রক্ষণ আর আক্রমণ সমস্যা সবখানেই আছে কমবেশি। আর সঙ্গে যোগ হয়েছে মেসির নিজেকে হারিয়ে খোঁজা। ওপেন প্লেতে এই মৌসুমে গোল করাই হচ্ছিল না, শেষ পর্যন্ত লা লিগার সর্বশেষ ম্যাচে সেটা পাওয়া হয়েছে তার। কিন্তু মেসি যে নিজের সেরা ফর্মে নেই, সেটা দিনের আলোর মতোই পরিষ্কার। বার্সায় থাকা না থাকা নিয়ে এত নাটক, এর মধ্যে গার্দিওলার সিটিতে থেকে যাওয়া সেটা আরও জমিয়ে দিয়েছে। গার্দিওলা যদিও বার বার বলছেন, মেসিকে বার্সায় ক্যারিয়ার শেষ করতে দেখলেই সবচেয়ে খুশি হবেন। কিন্তু সেটা যে হওয়ার সম্ভাবনা ক্ষীণ, তা পরিষ্কার হয়ে আসছে। মেসির সামনে অ্যাটলেটিকোর ম্যাচটা তাই মন উঠে যাওয়া ক্লাবে শেষের শুরুটা মনে রাখার মতো কিছু করে দেখানোর উপলক্ষও।

    অথচ আজকের ম্যাচে শিরোনাম হয়ে থাকার জন্য লুইস সুয়ারেজের। চোখের জলে বার্সেলোনা থেকে বিদায় নিয়েছিলেন। অ্যাটলেটিকোতে স্বপ্নের শুরুর পর আজকের ম্যাচটা আবেগ আর জবাব দেওয়ার মিশেলে অন্যরকম কিছু হওয়ার কথা ছিল তার। কিন্তু করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এই ম্যাচটা দেখতে হচ্ছে টিভি সেটের সামনে থেকে।

    দলের খবর

    চোটের জন্য সার্জিও বুসকেটসকে এই ম্যাচে পাচ্ছেন না কোমান। আনসু ফাতি ছিটকে গিয়েছিলেন আগেই, স্যামুয়েল উমতিতি আছেন সেরে ওঠার প্রক্রিয়ায়

    বার্সা্র সম্ভাব্য একাদশ

    টের স্টেগেন, আলবা, লেংলে, পিকে, ডেস, ডি ইয়িং, পিয়ানিচ, পেদ্রি, মেসি, দেম্বেলে, গ্রিজমান।

    সুয়ারেজ করোনা ভাইরাসের জন্য নেই। আগেই সাইডলাইনে চলে গেছেন লুকাস তরেইরা, সিমি ভ্রাসালকো, হেক্টর হেরেরা, স্টেফান সাভিচ। বিশেষ করে সুয়ারেজের সঙ্গে ডিয়েগো কস্তাকেও হারিয়ে ফেলার অভাবটা টের পেতে পারেন সিমিওনে।

    অ্যাটলেটিকোর সম্ভাব্য একাদশ

    অবলাক, ট্রিপিয়ের, ফেলিপে, হিমেনেজ, হারমোসো, মার্কোস লরেন্তে, কোকে, সল নিগেজ, কারাসকো, ফেলিক্স, হোয়াকিন কোরেরা।

     

    সংখ্যায় সংখ্যায়

    লা লিগায় সর্বশেষ ২৩ ম্যাচে অপরাজিত অ্যাটলেটিকো

    ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগে অপরাজিত মাত্র ছয়টি দলের মধ্যে অ্যাটলেটিকো একটি

    সর্বশেষ পাঁচটি লিগের ম্যাচে মাত্র একটি জিতেছে বার্সা

    অ্যাটলেটিকোর বিপক্ষে ১৭ ম্যাচে ১২ গোল আছে মেসির

     

    প্রেডিকশন

    অ্যাটলেটিকো ২-১ বার্সেলোনা

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন