• ক্রিকেট, অন্যান্য
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    আইসিসির দশকসেরা পুরস্কারের মনোনয়নে কোহলি-পেরি-ল্যানিংয়ের আধিপত্য

    দশকসেরা পুরস্কারের জন্য মনোনিত ক্রিকেটারদের তালিকা প্রকাশ করেছে আইসিসি। এই দশকে ছেলে ও মেয়েদের সেরা ক্রিকেটার, ছেলেদের সেরা টেস্ট ক্রিকেটার, ছেলে ও মেয়েদের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টিতে সেরা ক্রিকেটার, সহযোগী দেশগুলির সেরা ছেলে ও মেয়ে ক্রিকেটার এবং আইসিসি স্পিরিট অফ দ্য ক্রিকেট-এর দশকসেরা পুরস্কার দেওয়া হবে। সঙ্গে ছেলে ও মেয়েদের দশকসেরা একাদশও ঘোষণা করবে আইসিসি। তবে ব্যক্তিগত পুরস্কারের ক্ষেত্রে সমর্থকদের ভোট দেওয়ার সুযোগ থাকলেও একাদশ নির্বাচন করবে আইসিসিই। 

    পূর্ণ সদস্য দেশগুলির পুরস্কারের তালিকায় সবকটি ক্যাটাগরিতেই পুরস্কার পেয়েছেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। এছাড়া দুটি আলাদা ক্যাটাগরিতে মনোয়ন পেয়েছেন ৭ জন। মেয়েদের ক্ষেত্রে তিনটি ক্যাটাগরিতেই মনোয়ন পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার দুজন-- মেগ লেনিং ও এলিস পেরি। 

    ১ জানুয়ারি ২০১১ সাল থেকে ৭ অক্টোবর ২০২০ সাল পর্যন্ত কমপক্ষে ৫ বছর খেলেছেন, এমন ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স বিবেচনায় আনা হয়েছে। আইসিসির এক কমিটি প্রাথমিক মনোনীত ক্রিকেটারদের তালিকা ঠিক করেছে। এরপর চূড়ান্ত ঠিক করবে আরও বড় কমিটি, যেখানে সমর্থকদের অংশগ্রহণেরও সুযোগ থাকছে। সমর্থকদের ভোটের গুরুত্ব থাকবে ১০ শতাংশ, বাকি ৯০ শতাংশ নির্বাচন করবেন আইসিসির জুরি বোর্ড। 

    “গেল দশকে অন-ফিল্ড পারফরম্যান্স, খেলায় প্রভাব এবং সব মিলিয়ে এই সময়ের অর্জনের ওপর ভিত্তি করে প্রতি ক্যাটাগরিতে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে” বলে জানিয়েছে আইসিসি। 

    সমর্থকরা ভোট দিতে পারবেন এই লিঙ্কে

    আইসিসির দশক পুরস্কার মনোনীতদের তালিকা 

    ছেলেদের দশকসেরা ক্রিকেটার
    রবি আশ্বিন (ভারত), বিরাট কোহলি (ভারত), জো রুট (ইংল্যান্ড), কুমার সাঙ্গাকারা (শ্রীলঙ্কা), স্টিভ স্মিথ (অস্ট্রেলিয়া), এবি ডি ভিলিয়ার্স (দক্ষিণ আফ্রিকা), কেন উইলিয়ামসন (নিউজিল্যান্ড)

    মেয়েদের দশকসেরা ক্রিকেটার
    সুজি বেটস (নিউজিল্যান্ড), মেগ ল্যানিং (অস্ট্রেলিয়া), এলিস পেরি (অস্ট্রেলিয়া), মিথালি রাজ (ভারত), সারাহ টেইলর (ইংল্যান্ড), স্ট্যাফানি টেইলর (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)

    ছেলেদের দশকসেরা টেস্ট ক্রিকেটার
    জেমস অ্যান্ডারসন (ইংল্যান্ড), রঙ্গনা হেরাথ (শ্রীলঙ্কা), বিরাট কোহলি (ভারত), জো রুট (ইংল্যান্ড), ইয়াসির শাহ (পাকিস্তান), স্টিভ স্মিথ (অস্ট্রেলিয়া), কেন উইলিয়ামসন (নিউজিল্যান্ড) 

    ছেলেদের দশকসেরা ওয়ানডে ক্রিকেটার
    এমএস ধোনি (ভারত), বিরাট কোহলি (ভারত), লাসিথ মালিংগা (শ্রীলঙ্কা), কুমার সাঙ্গাকারা (শ্রীলঙ্কা), রোহিত শর্মা (ভারত), মিচেল স্টার্ক (অস্ট্রেলিয়া), এবি ডি ভিলিয়ার্স (দক্ষিণ আফ্রিকা) 

    মেয়েদের দশকসেরা ওয়ানডে ক্রিকেটার
    সুজি বেটস (নিউজিল্যান্ড), ঝুলন গোস্বামি (ভারত), মেগ ল্যানিং (অস্ট্রেলিয়া), এলিস পেরি (অস্ট্রেলিয়া), মিথালি রাজ (ভারত), স্ট্যাফানি টেইলর (ওয়েস্ট ইন্ডিজ) 

    ছেলেদের দশকসেরা টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার
    অ্যারন ফিঞ্চ (অস্ট্রেলিয়া), ক্রিস গেইল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), রশিদ খান (আফগানিস্তান), বিরাট কোহলি (ভারত), লাসিথ মালিংগা (শ্রীলঙ্কা), রোহিত শর্মা (ভারত), ইমরান তাহির (দক্ষিণ আফ্রিকা) 

    মেয়েদের দশকসেরা টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার
    সোফি ডিভাইন (নিউজিল্যান্ড), ডিয়ান্ড্রা ডটিন (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), অ্যালিসা হিলি (অস্ট্রেলিয়া), মেগ ল্যানিং (অস্ট্রেলিয়া), এলিস পেরি (অস্ট্রেলিয়া), অ্যানা স্রাবসোল (ইংল্যান্ড) 

    ছেলেদের সহযোগী দেশগুলির দশকসেরা ক্রিকেটার
    রিচি বেনিংটোন (স্কটল্যান্ড), পিটার বোরেন (নেদারল্যান্ডস), কাইল কোয়েটজার (স্কটোল্যান্ট), পরশ খাড়কা (নেপাল), ক্যালাম ম্যাকলয়েড (স্কটল্যান্ড), আসাদ ভালা (পিএনজি) 

    মেয়েদের সহযোগী দেশগুলির দশকসেরা ক্রিকেটার
    ক্যাথরিন ব্রাইস (স্কটল্যান্ড), সারাহ ব্রাইস (স্কটল্যান্ড), নাত্থাকান চানথাম (থাইল্যান্ড), স্টিরি ক্যালিস (নেদারল্যান্ডস), চানিডা সুত্থিরুয়াং (থাইল্যান্ড), সরনোরিং তিপোচ (থাইল্যান্ড)  

    স্পিরিট অফ ক্রিকেটের দশক পুরস্কার

    এমএস ধোনি (ভারত, ২০১১), ড্যানিয়েল ভেট্টোরি (নিউজিল্যান্ড, ২০১২), মাহেলা জয়াবর্ধনে (শ্রীলঙ্কা, ২০১৩), ক্যাথরিন ব্রান্ট (ইংল্যান্ড, ২০১৪), ব্রেন্ডন ম্যাককালাম (২০১৫, নিউজিল্যান্ড), মিসবাহ-উল-হক (পাকিস্তান, ২০১৬), অ্যানা স্রাবসোল (ইংল্যান্ড, ২০১৭), কেন উইলিয়ামসন (২০১৮, নিউজিল্যান্ড), বিরাট কোহলি (ভারত, ২০১৯) 

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন