• ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ ২০১৯-২০
  • " />

     

    ২৫ দিন পিছিয়ে ৩১ মে শুরু হচ্ছে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ

    ২৫ দিন পিছিয়ে ৩১ মে শুরু হচ্ছে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ    

    ৬ মে থেকে শুরু হতে যাওয়ার কথা ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ পিছিয়ে যাচ্ছে ৩১ মে পর্যন্ত। ২০১৯-২০ মৌসুমের লিগ ওইদিন থেকে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে শুরু হবে বলে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে বিসিবি। 

    ২০২০ সালের ১৯ মার্চ এক রাউন্ড হওয়ার পরই করোনাভাইরাস মহামারির কারণে স্থগিত হয়েছিল দেশের একমাত্র লিস্ট ‘এ’ টুর্নামেন্ট। এরপর গত ১৪ মার্চ সিসিডিএম জানিয়েছিল, এক রাউন্ড বাতিল করে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ৬ মে থেকে শুরু হবে লিগ। দুই উইন্ডোতে ৬ ও ১৫ দিনে হওয়ার কথা ছিল সেটি। 

    তবে নির্ধারিত সময়ের আগেই করোনাভাইরাসের সেকেন্ড ওয়েভে অনিশ্চিত হয়ে পড়েছিল প্রিমিয়ার লিগ। বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন জানিয়েছিলেন, নির্ধারিত সময়ে লিগ শুরুর সম্ভাবনা ক্ষীণ, “যতক্ষণ পর্যন্ত আমরা বায়ো-সিকিউর বলয় নিশ্চিত করতে না পারছি ততক্ষণ পর্যন্ত খেলাটা মাঠে গড়ানো একটু কঠিন। সেখানে একটা দল হোক বা দশটা। যদিও বিসিবি চেষ্টা করে যাচ্ছে। ওরা যদি আমাকে মানাতে পারে যে জৈব সুরক্ষা বলয়ে ওরা খেলাটা চালাতে পারবে তাহলে আমরা খেলব। আমার কাছে মনে হচ্ছে সম্ভাবনা খুবই ক্ষীণ।”

    করোনাভাইরাসের কারণে গত ২ এপ্রিল দুই রাউন্ডের পর স্থগিত করা হয়েছিল জাতীয় ক্রিকেট লিগ। মাঝে এক বছর না হওয়া প্রথম শ্রেণির এই টুর্নামেন্টের এ আসর শুরু হয়েছিল গত ২২ মার্চ। যেটি বায়ো-সিকিউর বলয়ে হওয়ার কথা থাকলেও কোভিড-১৯ পজিটিভ হয়েছিলেন বেশ কয়েকজন ক্রিকেটার। 

    তবে করোনাভাইরাসের সময়ে বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপ ও বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের বাংলাদেশ সফর থেকে শিক্ষা নিয়ে এ লিগ আয়োজন করা হবে বলে জানিয়েছেন সিসিডিএম চেয়ারম্যান কাজি ইনাম আহমেদ, “ক্রিকেটারদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে বোর্ড প্রেসিডেন্ট পরিষ্কার নির্দেশনা দিয়েছেন। এ মৌসুমে বোর্ড দুটি টুর্নামেন্ট সফলভাবে আয়োজন করেছে, ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর আয়োজন করেছে। সেসব থেকে পাওয়া শিক্ষা কাজে লাগিয়েই আমরা ডিপিএল আয়োজন করব। আমরা জানি ক্রিকেটার এবং ক্লাবগুলির জন্য এই লিগের অর্থ কী, এবং এই পরিকল্পনাকালিন সময়ে তাদের সমর্থনকে সাধুবাদ জানাই আমরা।” 

    এর আগে জাতীয় দলের ঠাসা সূচির কারণে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে লিগ আয়োজনের সিদ্ধান্তের কথা বলা হলেও এবার ইনাম উল্লেখ করেছেন এ বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কথাও, “আগেই নেওয়া সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এটি টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে হবে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের ঠাসা সূচি এবং টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কারণে আমাদের বিশ্বাস এটিই হবে ২০১৯-২০ লিগের জন্য আদর্শ ফরম্যাট।” 
     

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন