• নিদাহাস ট্রফি ২০১৮
  • " />

     

    ওয়ালশকেই কোচ দেখতে চান খালেদ মাহমুদ

    চন্ডিকা হাথুরুসিংহের বিদায়ের পর থেকেই নতুন কোচের সন্ধানে আছে বিসিবি। রিচার্ড পাইবাস, ফিল সিমন্স, পল ফারব্রেস; বাংলাদেশের পছন্দের তালিকায় অনেকে থাকলেও শেষ পর্যন্ত চূড়ান্ত চুক্তি হয়নি কারো সাথেই। নিদাহাস ট্রফিতে ভারপ্রাপ্ত হেড কোচ ছিলেন দলের বোলিং কোচ কোর্টনি ওয়ালশ। দলের ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ বলছেন, যতদিন কোচ না পাওয়া যায় ওয়ালশকেই দায়িত্বটা পালন করতে দেওয়া উচিত।

    এপ্রিলের আসবে নতুন কোচ, অনেকদিন আগেই এটার আভাস দিয়েছিল বোর্ড। এপ্রিল মাস আসতে বাকি আর ৮ দিন। আদৌ কি আসবেন নতুন কোচ? খালেদ মাহমুদ নিজেও এই ব্যাপারে নিশ্চিত নন, ‘কোচ কবে আসবে সেটা জানা নেই। বোর্ড প্রেসিডেন্ট যখন বলেছেন কিছু একটা তো হবেই। আসুক না আসুক যেটাই হোক তিনিই জানাবেন। আমি মনে করি যে আসার জন্যই আসবে তেমন না, একজন 'প্রপার' কোচ আমাদের দরকার। সেগুলোই উনারা চিন্তা করছেন। অনেক নামই হয়ত আছে, আমাদের সঙ্গে কে সব কিছু মিলিয়ে কাজ করতে পারে সেটাই দেখার বিষয়।’

    নতুন কোচ না পেলেও ওয়ালশের ওপর ভরসা রাখতে রাজি খালেদ মাহমুদ, ‘ওয়ালশে দারুণ একজন মানুষ, সৎ একজন মানুষ। নিদাহাস ট্রফিতে দারুণভাবে অনুপ্রেরণা জুগিয়েছেন ক্রিকেটারদের। তার অভিজ্ঞতা তো ৪০ বছরের, দীঘদিন থেকে ক্রিকেটের সঙ্গে জড়িত। তার অভিজ্ঞতা নিয়ে তো কথাই নেই, তিনি ‘ফাদারলি ফিগার’। দলেরসবাই তাকে পছন্দ করে। সব মিলিয়ে সিরিজে তিনি দুর্দান্ত কাজ করেছেন।’

    সাকিব-তামিমদের জন্য ‘দেখেশুনে’ কোচ নির্বাচন করার পরামর্শ দিলেন খালেদ মাহমুদ, ‘কেমন কোচ আনতে হবে সেই ব্যাপারে আমি বোর্ডকে এখনো পরামর্শ দেইনি। তাঁরাও খুঁজছে, আমিও দেখছি,  খুঁজছি। মানুষ হিসেবে তিনি কেমন সেটাও দেখার বিষয়। আমাদের কোচও দরকার, ভালো মানুষও দরকার। আমাদের ছেলেরা আবেগি ধরনের তো! এসব চিন্তা করে কোচ নেওয়াটা দরকার আসলে।’