• ক্রিকেট, অন্যান্য
  • " />

     

    রুদ্ধশ্বাস জয়ে সোনার মুকুট পেলেন সালমারা

    বাংলাদেশ ২০ ওভারে ৯১/৮

    শ্রীলংকা ২০ ওভারে ৮৯/৯

    বাংলাদেশ ২ রানে জয়ী


    শেষ ওভারে শ্রীলংকার জয়ের জন্য দরকার ৭ রান, হাতে ৩ উইকেট। বল করতে এলেন বাংলাদেশের জাহানারা আলম। প্রথম বলে হলো ১ রান, পরের বলে কোনো রান নয়, পরের বলে আবারও ১ রান। পরের বলে ২ রান নিতে গিয়ে রান আউট হয়ে গেলেন আসপারা, হলো ১ রান। পরের দুই বলে দরকার ৪ রান, পঞ্চম বলে সিঙ্গেল হলো। শেষ বলে ২ রান নিলে ম্যাচ টাই, আর ৩ রান নিলে জয়ী শ্রীলংকা। কিন্তু ওই বলে রান আউট হয়ে গেলেন নিসানসালা। ২ রানের শ্বাসরুদ্ধকর এক জয়ে সাফ গেমসে সোনা জিতলেন বাংলাদেশের মেয়েরা।

    দাপটের সঙ্গে ফাইনালে উঠেছিলেন সালমারা। কিন্তু সেখানে শ্রীলংকার সঙ্গে লড়াইটা হলো জোর। পোখারায় আজ বাংলাদেশের দলের ব্যাটিংটাও ভালো হয়নি মোটেই। ১৬ রানের মাথায় হারায় প্রথম উইকেট। আয়েশা রহমানও এরপর আউট হয়ে যান ২ রানে। সানজিদা রহমান ভালোই খেলছিলেন, ১১ বলে ১৫ রানও করে ফেলেছিলেন। কিন্তু পরের বলে আউট হয়ে যান তিনিও। থিমশানির সেই ওভারেই আসলে ধ্বসে পড়ে বাংলাদেশ। প্রথম দুই বলে নেই আয়েশা ও সানজিদা, হ্যাটট্রিক বল ঠেকিয়ে দিয়েছিলেন ফারজানা। কিন্তু পরের বলেই হয়ে যান বোল্ড।শেষ বলে আউট হয়ে যান রিতুমনিও, এক ওভারেই চার উইকেট হারিয়ে বসে বাংলাদেশ। ১ উইকেটে ৩৬ রান থেকে হয়ে যায় ৫ উইকেটে ৩৬।

    সালমা খাতুনও টেকেননি বেশিক্ষণ, ৩ রান করেই আউট হয়ে গেছেন। ৪২ রানে এরপর ৬ উইকেট নেই বাংলাদেশের। নিগার সুলতানা ও ফাহিমা খাতুন এরপর ৩০ রানের জুটি গড়েছিলেন, এরপর ফাহিমা আউট হয়ে গেছেন ১৫ রান করে। তবে নিগার ২০ ওভার শেষেও অপরাজিত ছিলেন ৩৮ বলে ২৯ রান করে। আর তাতেই ৯১ পর্যন্ত পৌঁছতে পারে বাংলাদেশ।

    সেই রান তাড়া করে ১৪ রানের মধ্যে ৩ উইকেট নিয়ে ফেলেছিলেন সালমা, নাহিদা ও খাদিজা। শ্রীলংকার হয়ে দারুণ ব্যাট করছিলেন মাদাভি, ৩২ রান তুলে ফেলেছিলেন। তাঁকে আউট করে বড় ধাক্কাটা দিয়েছেন জাহানারা। তারপরও আপসারা ও সান্দামানি চেষ্টা করছিলেন, ২৩ রানও তুলে ফেলেছিলেন দুজন। সান্দামানির রান আউটে ভাঙে জুটি। এরপর ভিজেনায়েকেকে ১৯তম ওভারে গিয়ে আউট করেন নাহিদা। তবে আপসারা ২৫ রান করে ফেলেছিলেন। তিনি ছিলেন বলেই শেষ ওভারে ফেবারিট ছিল শ্রীলংকাই। কিন্তু জাহানারার দারুণ বোলিংয়ে বাংলাদেশ পেল স্বপ্নের একটা জয়।