• ক্রিকেট, অন্যান্য
  • " />

     

    কমে গেছে আইপিএলের প্রাইজমানি, আর হবে না উদ্বোধনী অনুষ্ঠান

    আর্থিক দিক দিয়ে বিশ্বের সবচেয়ে সচ্ছল ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই খরচ কমাতে আটঘাট বেঁধে নেমেছে। ঘরোয়া যে টুর্নামেন্ট থেকে সবচেয়ে বেশি অর্থাগম হয় তাদের, সেই আইপিএলের ওপরই পড়েছে বিসিসিআইয়ের ‘কৃচ্ছতা নীতি’র প্রভাব। আইপিএলের প্রাইজমানি অর্ধেক কমিয়ে আনার ঘোষণা দিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। আইপিএল সকল ফ্রাঞ্চাইজিকে চিঠি দিয়ে বিষয়টি জানিয়েছে বিসিসিআই। সঙ্গে বিপুল পরিমাণ অর্থ ব্যয়ে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান আয়োজনের রীতি থেকেও সরে এসেছে তারা।

    গত কয়েক বছরে সামগ্রিকভাবে ভারতীয় অর্থনীতির অবস্থা খুব একটা ভালো নয়। তবে এর প্রভাব যে ভারতীয় ক্রিকেটে পড়তে পারে সেটি কেউ আঁচ করতে পারেননি। আইপিএলের প্রাইজমানি কমানো এবং ভেন্যু খরচ বাড়ানোর মধ্য দিয়ে বিসিসিআই সেই প্রভাবের বিষয়টিই যেন পরিষ্কার করল। গত আইপিএলে চ্যাম্পিয়ন দল প্রাইজমানি হিসেবে ২০ কোটি রুপি পেত, নতুন ঘোষণায় সেটি ১০ কোটি রুপিতে নেমে এসেছে। এছাড়া এখন থেকে রানার-আপ দল পাবে ৬.২৫ কোটি এবং তৃতীয় ও চতুর্থ স্থান অধিকারী দল ৪.৩৭ কোটি রুপি করে পাবে। পূর্বে রানার-আপ দল এবং তৃতীয়, চতুর্থ স্থান পাওয়া দলগুলো যথাক্রমে ১২.২৫ কোটি এবং ৮.৭৫ কোটি রুপি প্রাইজমানি পেত।

    তবে আইপিএল কর্তৃপক্ষের প্রাইজমানি কমানোর এই সিদ্ধান্তে ফ্রাঞ্চাইজিগুলো মোটেই খুশি নয়। টাইমস অফ ইন্ডিয়া’র তথ্যমতে, অন্তত চারটি ফ্রাঞ্চাইজি সিদ্ধান্তের বিপক্ষে তাদের অবস্থান পরিষ্কার করেছে। আইপিএল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে বিসিসিআইয়ের সঙ্গে দরকষাকষি করবে বলে জানিয়েছে তারা। 

    আগামী ২৯ মার্চ থেকে শুরু হচ্ছে আইপিএলের এবারের আসর।