• ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ
  • " />

     

    নর্থ লন্ডন ডার্বি জিতে আর্সেনালকে টপকে গেল টটেনহাম

    ফুলটাইম
    টটেনহাম ২-১ আর্সেনাল


    নর্থ লন্ডন ডার্বি জিতে আর্সেনালকে টপকে গেল টটেনহাম। টটেনহামের মাঠে অবশ্য শুরুতে আর্সেনালই এগিয়ে গিয়েছিল। কিন্তু হিউং মিন সন আর টবি অ্যাল্ডারভাইরেল্ডের গোলে শেষ পর্যন্ত খালি হাতেই ফিরতে হয়েছে গানারদের। আর আর্সেনালকে হারিয়ে 'ও' ক্লাসিকো, এল ক্লাসিকো, লন্ডন ডার্বি, মিলান ডার্বি, ম্যানচেস্টার ডার্বির পর নিজের প্রথম নর্থ লন্ডন ডার্বিও জেতা হয়ে গেল হোসে মরিনহোর!

    দারুণ জয়ের পর মরিনহোও  নিজেও পায়ের নিচে মাটি পেয়েছেন। শেফিল্ড ইউনাইটেডের কাছে ৩-১ গোলে হারের পর নতুন করে চাপে পড়ে গিয়েছিলেন। আর ম্যাচের আগে ছিলেন মিকেল আর্টেটার ছায়াতেও। দুই কোচের জন্যই ছিল প্রথম নর্থ লন্ডন ডার্বির স্বাদ। ম্যাচ শেষে অবশ্য সমীকরণ উলটে গেছে।


    শেষ ৪ ম্যাচে ৩ জয় আর ১ ড্র নিয়ে টটেনহামের মাঠে এসেছিল মিকেল আর্টেটার আর্সেনাল। সাম্প্রতিক সময়ে আর্টেটার আর্সেনালই ইতিবাচক ফল দেখেছে বেশি। আর উলটো অবস্থায় ছিল মরিনহোর টটেনহামের। ম্যাচের শুরুতেও সেটি ফুটিয়ে উঠেছিল। ১৬ মিনিটে ২৫ গজ দূর থেকে অ্যালেক্সান্ডার লাকাজেত গোলার মতো শটে টপ কর্নারে বল জড়িয়ে আর্সেনালকে এগিয়ে দিয়েছিলেন।

    আর্সেনাল এরপর আরও একবার রক্ষণে অমার্জনীয় ভুল করে টটেনহামকে ম্যাচে ফেরার সুযোগ করে দেয়। তাও লাকাজেতের গোলে এগিয়ে যাওয়ার ৩ মিনিট পরই। আরও একবার তিনজনের ডিফেন্সিভ লাইন নিয়ে শুরু করেছিলেন আর্সেনাল। লেফটসেন্টারব্যাকের ভূমিকায় খেলা সিড কোলাসিনাচ এক ব্যাক পাস দিয়েই বিপদ ডেকে এনেছেন। ডেভিড লুইজ সতীর্থের পাসের নাগাল পাননি। সন বল নিয়ে বক্সের ভেতর ঢুকে এগিয়ে আসা গোলরক্ষকের মাথার ওপর দিয়ে বল জড়িয়ে দিয়েছেন জালে।

    আর্সেনালের আর্জেন্টাইন গোলরক্ষক এরপর দারুণ এক সেভ করেছেন প্রথমার্ধেই। বেন ডেভিসের প্রায় ৩০ গজ দূর থেকে করা শট তার হাতে ছুঁয়ে বারপোস্টের মাথায় লেগে আর গোলে পরিণত হয়নি। দ্বিতীয়ার্ধে বারপোস্টের কারণে গোল পায়নি আর্সেনালও। পিয়ের এমেরিক অবামেয়াং তখন গোলবঞ্চিত হয়েছিলেন।  

    আগের ম্যাচে শেফিল্ড ইউনাইটেডের বিপক্ষে গোলে শটই করতে পারেনি টটেনহাম। আর্সেনালের বিপক্ষে অবশ্য শেষ দশ মিনিটে দারুণ চাপ প্রয়োগ করে ম্যাচ ছিনিয়ে নেয় টটেনহাম। কর্নার থেকে আরও একবার আর্সেনালের ঢিলেঢালা রক্ষণের সুযোগ নিয়ে হেডে গোল করেন আল্ডারভাইরেল্ড। ৮১ মিনিটের ওই গোলেই পর জয় নিশ্চিত হয়েছে টটেনহামের।

    অবশ্য দুই দলের কারই পরেরবার চ্যাম্পিয়নস লিগে খেলার সম্ভাবনা প্রায় ফুরিয়েই গেছে। লিগের ৩ ম্যাচ বাকি থাকতে ৫২ পয়েন্ট নিয়ে টটেনহাম পয়েন্ট টেবিলের ৮ নম্বরে। দুই পয়েন্ট পিছিয়ে ৯- এ আর্সেনাল।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন