• লা লিগা
  • " />

     

    • লা লিগা

    অনুশীলনে যোগ না দিয়ে জরিমানা গুনতে পারেন গ্রিজমান

    আতোইন গ্রিজমান অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন আগের মৌসুমের শেষেই। তাঁর পরবর্তী গন্তব্য হচ্ছে বার্সেলোনা, সেটাও মোটামুটি ঠিকঠাকই ছিল। শেষ মুহূর্তে এসে অবশ্য দুই ক্লাবের মাঝে বেঁধেছে দ্বন্দ্ব। সেই দ্বন্দ্বের জের ধরেই গ্রিজমানকে অ্যাটলেটিকোর সাথে অনুশীলনের নির্দেশ দিয়েছিল ক্লাব কর্তৃপক্ষ। সেই নির্দেশনা না মেনে প্রাক-মৌসুমের অনুশীলনে যোগ দেননি গ্রিজমান। অনুশীলনে যোগ না দেওয়ায় প্রতিদিন সর্বোচ্চ ৫ হাজার ইউরো পর্যন্ত জরিমানা করা হতে পারে তাকে। 

    দুই ক্লাবের পরিচালক পর্যায়ের বৈঠকে কিস্তিতে গ্রিজমানের ট্রান্সফার ফি পরিশোধ করতে চেয়েছিল বার্সেলোনা। আর এ নিয়েই বেছে বিপত্তি। বার্সার আচরণকে অগ্রহণযোগ্য বলে অ্যাটলেটিকোর পক্ষ থেকে দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়েছিল, বার্সা ও গ্রিজমানের মাঝে লিগ চলার সময়ই আলোচনা হয়েছিল। এতে অ্যাটলেটিকো ও তার সমর্থকদের সাথে অসম্মানজনক আচরণ করেছেন গ্রিজমান, ক্লাবটি জানিয়েছিল এমনটাই। অ্যাটলেটিকোকে আর থাকছেন না, এমন ঘোষণা দেওয়ার পরেও গ্রিজমানকে দলের সাথে অনুশীলন করতে বলেছিলেন তাঁরা। 

    অ্যাটলেটিকোর সেই নির্দেশ মানেননি গ্রিজমান। অন্যরা অনুশীলনে এলেও সেরো ডেল এসপিনোর অনুশীলন গ্রাউন্ডে আসেননি তিনি। গ্রিজমানের আইনজীবী অবশ্য এক ইমেইল বার্তায় ক্লাব কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছেন, সতীর্থদের বিদায় বলে এমনিও খুব আবেগি হয়ে পড়েছিলেন গ্রিজমান। এরপর আর তাদের সাথে অনুশীলন করার মতো মানসিক অবস্থায় নেই তিনি। সাথে এটাও বলা হয়, সব অ্যাটলেটিকো ফুটবলাররা ৩০ দিনের ছুটিতে ছিলেন। গ্রিজমানের ছুটির এখনো চার দিন বাকি আছে। 

    গ্রিজমানের সাথে যেহেতু অ্যাটলেটিকোর ২০২৩ সাল পর্যন্ত চুক্তি আছে, তাই অনুশীলনে না আসায় তাকে জরিমানাও করতে পারেন তাঁরা। যতদিন তিনি না আসবেন, প্রতিদিন ৩ থেকে ৫ হাজার ইউরো পর্যন্ত জরিমানা গুনতে হতে পারে গ্রিজমানকে। সব মিলিয়ে প্রায় ৬০ হাজার ইউরো জরিমানা দিতে হতে পারে তাকে।