• বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্কুল ক্রিকেট
  • " />

     

    বান্দরবানে সাইফুলের ৮ উইকেট

    প্রাইম ব্যাংক প্রেজেন্টস বঙ্গবন্ধু ন্যাশনাল স্কুল ক্রিকেট প্রতিযোগিতায় আজ ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২০ তারিখে চাঁদপুর পর্যায়ের খেলায় মধূসুদন হাইস্কুল ২০ রানে হারিয়েছে গনি মডেল হাইস্কুলকে। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করে ৪৬.২ ওভারে সব কয়টি উইকেট হারিয়ে তারা সংগ্রহ করে ১৯৬ রান। সর্বোচ্চ ৪২ রান আসে অষ্টম ব্যাটসম্যান নয়ন খানের ব্যাট থেকে। গনি মডেলের পক্ষে অমি ৬১ রানের বিনিময়ে নেন ৩ উইকেট। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১৭৬ রানেই গুটিয়ে যায় গনী মডেলের ইনিংস। টপ অর্ডার ও মিডল অর্ডারের ব্যর্থতায় একসময় পরাজয়ের ব্যবধান আরো বড় হবে বলেই মনে হচ্ছিলো। কিন্তু লোয়ার মিডল অর্ডার ও লোয়ার অর্ডারের ব্যাটসম্যানরা আরো বড় লজ্জার হাত থেকে বাঁচায় গনি মডেল হাইস্কুলকে।

    মাগুরায় হয়েছে লো স্কোরিং ম্যাচ। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৩৬ ওভারে কালেক্টোরেট কলেজিয়েট স্কুল সংগ্রহ করে ১১২ রান। বড় রান করতে পারেনি কেউই। পুলিশ লাইনসের সৈয়দ সাঈদ ৩৩ রানের বিনিময়ে নেন ৪ উইকেট। তবে ছোট এই লক্ষ্যমাত্রাই বড় হয়ে দাঁড়ায় পুলিশ লাইনস সেকেন্ডারি স্কুলের জন্য। অতিরিক্তের খাতা থেকে ৩৭টি রান এলেও তাই স্কুলটির সংগ্রহ ৮৭ রান। কালেক্টোরেট কলেজিয়েট স্কুল ২৫ রানে বিজয়ী হয়। 

    বান্দরবানেও হয়েছে লো স্কোরিং ম্যাচ। যেখানে আল ফারুকি ইন্সটিটিউট ১৫ রানে হারিয়েছে বান্দরবান ক্যান্টনমেন্ট স্কুল অ্যান্ড কলেজকে। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করে মাত্র ১১৬ রানে অলআউট হয় আল ফারুকি ইন্সটিটিউট। জবাবে ব্যাট করতে নেমে সাইফুলের তোপের মুখে পড়ে ১০১ রানের বেশি করতে পারেনি বান্দরবান ক্যান্টনমেন্ট স্কুল অ্যান্ড কলেজ। ৪২ রানে ৮ উইকেট নিয়েছেন সাইফুল।

    পাবনায় হয়েছে একপেশে একটি ম্যাচ। আরএমএ স্কুলের রাসেল কিবরিয়ার বোলিং এর সামনে দাঁড়াতেই পারেনি টসে হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নামা আমজাদ হোসেন হাইস্কুল। মাত্র ৪৫ রানে অলআউট হয় তারা। রাসেল কিবরিয়া ১৩ রানে তুলে নেন ৭ উইকেট। লক্ষ্যমাত্রা ছূঁতে কোন উইকেট হারাতে হয়নি আরএমএ স্কুলের। মাত্র ৫ ওভারেই দুই ওপেনার মিলে জয় তুলে নেয়।

    হবিগঞ্জেও হয়েছে একপেশে একটি ম্যাচ। রিচি হাইস্কুল জিতেছে ৫ উইকেটে। এখানেও টসে হেরে প্রথমে ব্যাট কর‍তে নেমে আইডিয়াল হাইস্কুল ৫৯ রান করতেই অলআউট হয়ে যায়। জবাবে ৫ উইকেট হারালেও লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছুতে ১১ ওভারের বেশি লাগেনি রিচি হাইস্কুলের।

    লালমনিরহাটে টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৮৬ রানে অলআউট হয় অদিতমারী গভমেন্ট জিএস হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ।  ৮৭ রানের লক্ষ্যমাত্রায় ব্যাট করতে নেমে এক উইকেট হারালেও ফজলে রাব্বির ফিফটিটে (৬২) জয় তুলে নেয় লালমনিরহাট গভমেন্ট বয়েস হাইস্কুল। 

    গাজীপুরে টানটান উত্তেজনার এক ম্যাচে মাত্র ৭ রানে জয় পেয়েছে হরিনাল হাইস্কুল। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১৪৪ রানে অলআউট হয় তারা। সপ্তম ব্যাটসম্যান আহাদের ফিফটি (৫৩) না হলে আরো কম রানেই গুটিয়ে যেত তাদের ইনিংস। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দুই ওপেনার মারুফ ও রকির ব্যাটে ভর করে জয়ের কাছাকাছি চলে যায় গাজীপুর ক্যান্টনমেন্ট বোর্ড হাইস্কুল। উদ্বোধনী জুটিতেই আসে ৮৪ রান। দুই ওপেনারই করেছেন ২৯ রান করে। কিন্তু ওপেনারদের বিদায়ের পর আর কেউই হরিনাল হাইস্কুলের বোলারদের সামনে দাঁড়াতে পারেনি। শেষ পর্যন্ত ১৩৬ রান করতেই গুটিয়ে যায় তাদের ইনিংস।

    দিনের অন্য খেলায় বরগুনায় জাহিদুলের (৬২) ব্যাটে ভর করে টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করে গগন মেমোরিয়াল হাইস্কুল সংগ্রহ করে ১১০ রান। মাত্র ১১১ রানের লক্ষ্যমাত্রায় খেলতে নেমে ৫৫ রানে অলআউট হয় আমতলী জি.এ হাইস্কুল। অষ্টম ব্যাটসম্যান সুজয় (১৩*) বাদে আর কেউই দুই অংক ছুঁতে পারেনি। গগন মেমোরিয়ালের পক্ষে তিনটি করে উইকেট নেন সাব্বির, মামুন, শুভ ও ফারহান।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন