• নিউজিল্যান্ড-বাংলাদেশ
  • " />

     

    দলে বড় পরিবর্তন চান না হাথুরুসিংহে

    নিউজিল্যান্ড সফরটা একেবারেই ভালো যায়নি মাশরাফি-তামিমদের। টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি; তিন সংস্করণের সবকয়টি ম্যাচ হেরেছে বাংলাদেশ। সাথে মরার উপর খাঁড়ার ঘা হয়ে যোগ হয়েছে ইনজুরিও। তবে এতকিছুর পরেও কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে মনে করেন, এই পরাজয়ে হতাশ হওয়ার কিছু নেই। দলে বড় কোনো পরিবর্তন আনারও প্রয়োজন নেই।

     

    আট ম্যাচের আটটিতেই পরাজয়। পুরো সফরে একটিও জয়ের মুখ না দেখা বাংলাদেশ দলকে  স্বাভাবিকভাবেই হতাশা ঘিরে ধরার কথা। তবে হাথুরুসিংহে মনে করিয়ে দিচ্ছেন, বিদেশের মাটিতে গিয়ে খেলাটা সহজ নয়, “আমি ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্সে খুশি। সিরিজের ইতিবাচক দিকগুলো খুঁজে বের করতে হবে। দলের অনেক তরুণ ক্রিকেটার এসেছে এই সিরিজে। তাঁদের এই অভিজ্ঞতা ভবিষ্যতে দলকে অনেক সাহায্য করবে। রাব্বি এবং মিরাজ ইংল্যান্ড সিরিজের পর এইখানেও নিজেদের সাফল্য ধরে রেখেছে। তাঁরা দ্রুতই শিখছে সবকিছু।”

     

     

     

    চালকের আসনে থেকেও প্রথম টেস্টের মাঝপথে এসে খেই হারিয়ে ফেলেছিলেন সাকিবরা। দ্বিতীয় টেস্টে তো মাত্র চারদিনেই পরাজয় মেনে নিতে হয়েছে। হাথুরুসিংহ মনে করেন, টেস্ট অঙ্গনে ভালো করতে হলে এখনো অনেকটা পথ পাড়ি দিতে হবে দলকে, “দুই টেস্টেই আমাদের পারফরম্যান্স কিছুটা হতাশ করার মতো ছিল। আমরা হয়তো এখনো শারীরিকভাবে পাঁচদিনের ম্যাচ খেলার জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত করতে পারিনি নিজেদের। তবে এটা বলতেই হবে, নিউজিল্যান্ড অসাধারণ ক্রিকেট খেলেছে। আমরা শ্রেয়তর দলের কাছেই হেরেছি।”

     

    গতকাল ম্যাচ শেষ অধিনায়ক তামিম বলেছেন, দলের ব্যর্থতার পুরো দায় তাঁরই। অধিনায়কের এরকম দায়িত্ব নেওয়ার ঘটনাটি পছন্দ হয়েছে হাথুরুসিংহের, “তামিমের দায়ভার নেওয়ার ঘটনাটা একটা শুভ সূচনা বলতে পারেন। ক্রিকেটারদের থেকে এর বেশি কিছু আশা করতে পারেন না আপনি। এখন পরবর্তী কাজ হচ্ছে এটার সমাধান খুঁজে বের করা। অনেকদিন পর আমরা বিদেশের মাটিতে খেলেছি। নিজেদের খামতিগুলোকে পূরণ করার চেষ্টা করতে হবে। আমি মনে করি আমরা ভবিষ্যতে ভালো কিছুর দিকে এগোচ্ছি।” সূত্রঃ ক্রিকইনফো। 

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন