• বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    সমস্যাটা মুশফিকের, বললেন বিসিবি সভাপতি

    মুশফিকুর রহিমের একটা কথাই যেন সলতেতে আগুন ধরিয়ে দিল। অস্ট্রেলিয়ার কাছে হারের পর সংবাদ সম্মেলনেই বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক বলেছিলেন, দলে তাঁর ভূমিকাটা ঠিক নিজের ইচ্ছায় হচ্ছে না। সেটা ‘ওপরে’ যারা আছেন, তাঁরাই ভালো বলতে পারবেন। কিন্তু আজ বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন জানালেন, সমস্যাটা মুশফিকের নিজেরই।  

    কাল সংবাদ সম্মেলনে মুশফিক দাবি করেছিলেন, দলের সবকিছু তাঁর ইচ্ছায় হচ্ছে না। বরং ‘ওপরে যাঁরা আছেন’, তাঁদের এই প্রশ্নটা করলে ভালো হয়। কিন্তু নামজুল হাসান মুশফিকের এই কথায় বরং বেশ অবাক, ‘সমস্যা মুশফিকের। মাশরাফি অধিনায়কত্ব করেছে, ওর কখনো এই সমস্যার সামনে পড়তে হয়নি। সাকিবও টি-টোয়েন্টিতে করবে, ওর এই সমস্যা হবে বলে মনে হয় না, সেটা আমি লিখে দিতে পারি। এই ব্যাপারগুলো অধিনায়কের সিদ্ধান্ত।’

     

     

    নাজমুল হাসান বলছেন, শেষ সিদ্ধান্তটা মুশফিকেরই নিতে হবে,  ‘আপনাকে একটা স্ট্র্যাটেজি দিতে পারি, সেটা বাইরে কো বা আমরা বলতে পারি। কিন্তু কখন কী করতে ঘবে সিদ্ধান্তটা অধিনায়কের। কে কখন নামবে, সেটা মাশরাফিকে বলে আপনি বদলাতে পারবেন না। বল কাকে দেবে, সেটাও ওর সিদ্ধান্ত।  আমরা বাইরে থেকে একটু বলতে পারি, একে দাও, ওকে দাও, এ ছাড়া কিছু করার নেই। আমরা বলতে পারি, মুশফিককে জিজ্ঞেস করেছি ও কিপিং করবে কি না।’

    নাজমুল হাসান দাবি করলেন, ‘দ্বিতীয় ইনিংসের আগে চার ব্যাট করার জন্যই মুশফিককে ভেবে দেখতে বলেছিলেন, ‘চার নাম্বারে করবে কি না সেটাও জিজ্ঞেস করচ্ছি। আগের দিনও আমি খবর পাঠিয়ছি ও চারে আসুক। ও নাসিরকে পাঠিয়েছে। সে তো চার নামেনি, যেটা ভালো করেছে সেটাই করেছে। সে হয়তো তার পজিশন চেঞ্জ করতে চায় না।  এটা নিয়ে কোনো সমস্যা নেই।’ বিসিবি সভাপতি মনে করিয়ে দিচ্ছেন, মুশফিকও টিম ম্যানেজমেন্টের অংশ, ‘সবাই মিলে যদি ঠিক করি এই জিনিসটা করা উচিত, এটা কি টিম ম্যানেজমেন্টের সিদ্ধান্ত? ওর তো বলা উচিত এটা সবার সিদ্ধান্ত এরকম কিছু না ওকে চাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে কিছু। বিশেষ করে খেলার সময় অবশ্যই ওকে সাজেশন দিই, আমরাও দিই। সেটাও আলাদা ইস্যু। প্রথম দিনে সাকিব, মিরাজ তাইজুল, কোচের সাথে বসেছি, কীরকম প্ল্যান হবে সেটা নিয়ে আলাপ করেছি। তার মানে এই না বলে দেব এটা করতে হবে। ওরা যে মানের, তাতে ওদের কী করতে হবে সেটা বলে দেওয়ার দরকার নাই। মুশফিক তো পার্ট অব টিম ম্যানেজমেন্ট। আমি জানি না আসলে ও কী বোঝাতে চেয়েছে।’

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন