• বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    শান্তর সেঞ্চুরিতে শুরু এইচপি দলের

    জয় দিয়েই শুরু হতো পার এইপি দলের। শেষ পর্যন্ত বৃষ্টির বাগড়ায় সেটা হলো না। তবে নটিংহামশায়ারের বি দলের সঙ্গে ইংল্যান্ড সফরের প্রথম ম্যাচে প্রাপ্তি হয়ে থাকবে অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্তর সেঞ্চুরি।

    তিন দিন আগে ইংল্যান্ডে পা রেখেছে এইচপি দল। নটিংহামশায়ারের সঙ্গে ম্যাচে শুরুতে ব্যাট করেছিল এইচপি দল। ১১ রানে ইরফান শুক্কুর আউট হয়ে গেলেও দ্বিতীয় উইকেটে এরপর ১৬৪ রানের জুটি গড়ে তোলেন শাদমান ইসলাম ও নাজমুল হোসেন শান্ত। শাদমান ৮৪ রানে আউট হয়ে গেলেও শান্ত থিকই সেঞ্চুরি পেয়েছেন। ১২৪ বলে ১০৬ রানের ইনিংসে ছিল চারটি চার ও তিনটি ছয়। তবে এইচপির রান ৩০০ পার হওয়ার মূল কৃতিত্ব অলরাউন্ডার সাইফ উদ্দিনের। ছয় নম্বরে নেমে ১৬ বলে ৩৩ রান করেছেন সাইফ ইদ্দিন, ৭ বলে ১১ রান করে অপরাজিত ছিলেন তানবীর হায়দার। শেষ পর্যন্ত ৫০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ৩০৫ রান করতে পেরেছে এইচপি দল।

    এই রান তাড়া করতে নেমে শুরুটা ভালোই করেছিলেন নটিংহামশায়ারের দুই ওপেনার, ১১ ওভারেই করে ফেলেছিলেন ৬৫ রান। কিন্তু ৪৩ রানে এবাদত হোসেনের বলে লুক উড আউট হয়ে যাওয়ার পর শুরু হয় আসা যাওয়ার মিছিল। ৭৭ থেকে ৮০- তিন রানের মধ্যে মুরস ও গিবসনকে ফিরিয়ে দিয়েছেন মেহেদী হাসান। এরপর ডাল ও রুটকে ফিরিয়ে দিয়েছেন লেগ স্পিনার জুবায়ের হোসেন, ১৩৯ রানেই ৫ উইকেট হারিয়ে বসেছে নটিংহামশায়ার। ১৭০ রানে জেমসকে ফিরিয়ে দিয়ে দ্বিতীয় উইকেট পেয়েছেন এবাদত। জয়টা যখন এইচপিকে হাতছানি দিচ্ছে, তখনই নামল বৃষ্টি। নটিংহামশায়ারের রান তখন ৩৭ ওভারে ১৯৫, জয়ের জন্য ১৩ ওভারে দরকার আরও ১১২ রান। হাতে ছিল চার উইকেট। এরপর আর খেলা শুরু হতে পারেনি, ম্যাচ হয়ে গেছে পরিত্যক্ত ।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন