• ভারত-অস্ট্রেলিয়া সিরিজ
  • " />
    X
    GO11IPL2020

     

    নতুন নিয়মের কথা ওয়ার্নাররা জানতেনই না!

     

    ২৮ সেপ্টেম্বর থেকেই বদলে গেছে ক্রিকেটের বেশ কয়েকটি নিয়ম। গত মাসে শুরু হওয়া অস্ট্রেলিয়া-ভারত সিরিজের বাকি ম্যাচে আগের নিয়মে খেলা হবে বলেই দুই দেশের সম্মতি ছিল। তবে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে নতুন নিয়মের রিভিউতে ধন্দেই পড়ে গিয়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ানরা। 

    শুরুতে ব্যাট করতে নেমে ৮ উইকেটে ১১৮ রান তোলে অস্ট্রেলিয়া। বৃষ্টির কারণে ভারতের লক্ষ্য দাঁড়ায় ৬ ওভারে ৪৮ রান। পুরনো নিয়ম অনুযায়ীই নাথান কোল্টার নাইল করতে পেরেছেন সর্বোচ ২ ওভার, বাকি চারজন বোলার করেছেন ১ ওভার করে। নতুন নিয়ম অনুযায়ী খেলা ১০ ওভারের কম হলে একজন বোলারের সর্বোচ্চ ওভার সংখ্যা ২ এর কম হতে পারবে না। সেক্ষেত্রে কাল ৩ জন বোলার ২ ওভার করে করতে পারতেন।

    বিভ্রান্তির শুরু এখানেই। বোলিংয়ের ক্ষেত্রে পুরনো নিয়ম বজায় থাকলেও নতুন নিয়ম অনুযায়ী কাল রিভিউ  নেওয়ার সুযোগ ছিল। অ্যারন ফিঞ্চ বলছেন, এটা নাকি অস্ট্রেলিয়ানরা জানতই না, “আমরা তো পঞ্চম ওভার পর্যন্ত জানতামই না ডিআরএস আছে! কেউই জানত না। স্মিথ সবার জন্য পানি নিয়ে আসার পর ব্যাপারটা জানিয়েছে। আমরা আম্পায়ারকে জিজ্ঞাসা করলাম এরপর। এটা আমাদের অবাক করেছে যে এই সিরিজে নতুন নিয়ম প্রয়োগ করা হচ্ছে।”

    অস্ট্রেলিয়ানরা ব্যাপারটা নিয়ে অনেক সময় ধরেই বিভ্রান্ত ছিলেন বলে জানান ফিঞ্চ, “আমরা তো জানতাম ব্যাটের আকার এবং অন্য নিয়ম এই সিরিজের পরে আসবে। বোলারদের নিয়মটাও তো প্রয়োগ হয়নি নতুন নিয়ম অনুযায়ী। কিন্তু রিভিউ পদ্ধতি ছিল। যদি এটা খেলায় কোনো প্রভাব ফেলেনি। তবে সিরিজের মাঝপথে নতুন নিয়ম আনাটা  উচিত নয়।”

    ভারতের ব্যাটসম্যান শিখর ধাওয়ানের অবশ্য রিভিউ পদ্ধতি থাকা নিয়ে কোনো সমস্যা ছিল না, “ যেটা নিয়ম সেটাই প্রয়োগ করা হয়েছে। যে নিয়মের কথা বলছেন সেটার ব্যাপারে ভালোভাবেই জানা ছিল আমার। তারাই হয়ত স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছিলেন না।”

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন