• ক্রিকেট, অন্যান্য
  • " />

     

    ইংলিশ ক্রিকেটের বর্ষসেরা স্টোকস

    পুরস্কারটা বেন স্টোকসের হাতে উঠবে, এটা অনেকটা অনুমেয়ই ছিল। প্রথমবারের মতো ইংলিশ ক্রিকেটের বর্ষসেরার পুরস্কার জিতলেন স্টোকস। প্রফেশনাল ক্রিকেটার্স অ্যাসসিয়েশন প্লেয়ার্সের এই বছরের সেরা হয়েছে এই ইংলিশ অলরাউন্ডার। 

    ঘরের মাঠে ইংল্যান্ডকে বিশ্বকাপ জেতানোর নায়ক ছিলেন স্টোকস। লর্ডসের ফাইনালে অপরাজিত ৮৪ রানের পাশাপাশি টুর্নামেন্টে স্টোকসের রান ছিল ৪৬৫। বিশ্বকাপের সাফল্যের পর অ্যাশেজেও স্টোকস জাদু দেখেছে ক্রিকেট বিশ্ব। বিশেষ করে হেডিংলিতে ১৩৫ রানের অপরাজিত এক অবিশ্বাস্য ইনিংসে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এক উইকেটের জয় ছিনিয়ে এনেছিলেন স্টোকস। 

    বর্ষসেরার পুরস্কার হাতে স্টোকস 

     

    বর্ষসেরার পুরস্কার জিতে উচ্ছ্বসিত স্টোকস, ‘এই অনুভূতি আসলে ভাষায় প্রকাশ করা যাবে না। এই গ্রীষ্মের পারফরম্যান্সের জন্য পিসিএ প্লেয়ার্সের এই পুরস্কার জিতেছি এটা ভেবেই দারুণ লাগছে। এই সম্মান পেয়ে আমি গর্বিত। এটা আমার ক্যারিয়ারের অন্যতম বড় একটি মুহূর্ত। আগের ৪৯ জন বিজয়ীর মতো আমিও তাই আনন্দিত।’ 

    ব্যক্তিগত এই সাফল্যের কৃতিত্বটা সতীর্থদেরও দিচ্ছেন স্টোকস, ‘আমি যদিও ব্যক্তিগত পুরস্কারটি জিতেছি, কিন্তু ক্রিকেট দলীয় খেলা। দলের অন্যরাও এটার অংশীদার। বিশ্বকাপ জয়, অ্যাশেজের ড্র হওয়া সিরিজ, ২০১৯ সালটা দারুণ কেটেছে।’ 

    ক্যারিয়ারের শুরুতে বর্ষসেরা উঠতি ক্রিকেটারের পুরস্কারও পেয়েছিলেন স্টোকস। দুই পুরস্কারই পাওয়া ষষ্ঠ ক্রিকেটার হলেন তিনি। বর্ষসেরা টেস্ট ক্রিকেটারের পুরস্কার উঠেছে স্টুয়ার্ট ব্রডের হাতে, ওয়ানডেতে এটা পেয়েছেন ক্রিস ওকস। ২০ বছর বয়সী সমারসেটের টম ব্যান্টন জিতেছেন সেরা যুব ক্রিকেটারের পুরস্কার। মেয়েদের বিভাগে সেরা হয়েছে সোফি একলেস্টোন।