• ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ
  • " />

     

    তরুণদের 'ক্রিসমাস উপহারের' মতো সুযোগ দেবেন না ক্লপ

    রেকর্ড ৭ ম্যাচ হাতে রেখে লিগ জিতে নিয়েছে লিভারপুল। আর সিটির বিপক্ষে ম্যাচের পর চলতি মৌসুমে আরও ৬ ম্যাচ বাকি রয়েছে অলরেডদের। ম্যাচগুলোতে লিভারপুলের সামনে বেশ কয়েকটি প্রিমিয়ার লিগ রেকর্ড গড়ার সুযোগ রয়েছে ঠিক, তবে কার্যত ফলাফলের বিচারে ম্যাচগুলো গুরুত্বহীন। আর সাধারণত এই ধরনের ম্যাচে মূল একাদশে কম সুযোগ পাওয়া এবং অপেক্ষাকৃত অনভিজ্ঞ ও তরুণ খেলোয়াড়দের বাজিয়ে দেখেন ম্যানেজাররা। তবে লিভারপুল কোচ ইয়ুর্গেন ক্লপের তেমন কোনও পরিকল্পনা নেই। প্রিমিয়ার লিগে খেলার সুযোগকে স্কোয়াডের মাঝে ‘ক্রিসমাস উপহারে’র মতো বিলাতে চান না এই জার্মান।


    শিরোপা নিশ্চিত হয়ে গেলেও মৌসুমের বাকি ৬ ম্যাচে দল নির্বাচনের ক্ষেত্রে কোনও পরিবর্তন আসছে না বলে পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছেন ক্লপ, “তরুণ খেলোয়াড়রা ভালো করছে। তবে তাদেরকে এমনিতে প্রিমিয়ার লিগে ম্যাচ খেলার সুযোগ দেওয়া হবে না। আমরা ম্যাচ জিততে চাই, আর সেটা করতে হলে মাঠে আপনার সেরা খেলোয়াড়দেরই প্রয়োজন। যদি তরুণদের কেউ সেরা খেলোয়াড়দের মাঝে থাকে, তাহলে তারা অবশ্যই সুযোগ পাবে।”

    “তরুণ খেলোয়াড়রা অনেক ভালো খেলছে, তারা আমাদের ভবিষ্যৎ। তবে তারা এখনই প্রিমিয়ার লিগে খেলবে না। আমরা প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে খেলার সুযোগকে ক্রিসমাস উপহারের মতো বিতরণ করি না।”

    অবশ্য লিভারপুলের শেষ দুই ম্যাচের স্কোয়াডে ১৭ বছর বয়সী হার্ভি এলিয়ট, ১৯ বছরের নেকো উইলিয়ামস এবং কার্টিস জোনসকে দেখা গেছে। তাদের মাঝে নেকো দুই ম্যাচেই এবং হার্ভি ক্রিস্টাল প্যালেসের বিপক্ষে বদলি হিসেবে মাঠে নেমেছিলেন।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন