• ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফর
  • " />

     

    'ভারতের বিপক্ষে টেস্টে ফেরার সিদ্ধান্তটা ভুল ছিল' ওয়ার্নারের

    'ভারতের বিপক্ষে টেস্টে ফেরার সিদ্ধান্তটা ভুল ছিল' ওয়ার্নারের    

    অস্ট্রেলিয়া-ভারত সিরিজের শেষ দুই টেস্টে দলে ফেরার সিদ্ধান্তটা ঠিক ছিল না বলে মনে করেন ডেভিড ওয়ার্নার। গত নভেম্বরের ওয়ানডে সিরিজে কুঁচকির চোটে পড়ে প্রথম দুই টেস্টের দলে ছিলেন না তিনি। এরপর ওপেনিং জুটির ব্যর্থতার কারণে চোট থেকে পুরোপুরি সেরা না ওঠার পরও শেষ দুই টেস্টের জন্য দলে ফেরানো হয়েছিলো তাকে। তবে খুব একটা সুবিধা করতে পারেননি তিনি, চার ইনিংসে করেছিলেন মাত্র ৬৭ রান। উলটো সেই চোট আবারও মাথাচাড়া দিয়ে ওঠার কারণে পুনর্বাসনে যেতে হয়েছিল তাকে। 

    গত সপ্তাহে এই বিষয়ে কথা বলতে গিয়ে তিনি তার চোটের আপডেট জানানোর পাশাপাশি দলে ফেরার এই সিদ্ধান্ত নিয়ে আক্ষেপ প্রকাশ করেছেন। চোটের কারণে নয় মাসের মত বাইরে থাকতে হবে বলে মনে হয়েছিলো তার। এরমধ্যেই মিস করেছেন শেফিল্ড শিল্ডের প্রথম রাউন্ড। তবে ম্যাচ ফিট হয়ে ওঠা মাত্র পুনরায় মাঠে নামার সবুজ সংকেত পেয়ে এই সপ্তাহেই নিউ সাউথ ওয়েলসের হয়ে মাঠে নামতে যাচ্ছেন তিনি।

    “শেষ দুই টেস্টের জন্য মাঠে নামার সিদ্ধান্তটা পুরোপুরি আমার ছিল। শুধু নিজের কথা ভাবলে আমি হয়তো না-ই বলতাম। তবে মাঠে থেকে দলের জন্য ওপেন করাটাই তখন আমার কাছে সঠিক সিদ্ধান্ত বলে মনে হয়েছিল,” অ্যাডিলেডের উদ্দেশ্যে যাত্রা করার আগে সিডনি বিমানবন্দে সাংবাদিকদের বলেছেন তিনি। “পরে ভেবে দেখলাম ইনজুরি নিয়ে মাঠে নামাটা আসলে দলের জন্য হিতে বিপরীত হয়েছে।”

    এছাড়াও তার কুঁচকি ও সে অঞ্চলের একাধিক চোট প্রসঙ্গে তিনি বলেছেন, এর আগে এতো ভয়াবহ কিছু কখনোই অনুভব করেননি তিনি। “জিমে ফিরেই আমি স্ট্রেংথ ও স্পিড অনুশীলন করেছি, ভারত সিরিজের দুই টেস্টে যার কোনোটাই আমার ছিলনা বলেই মনে হয়েছে। তবে বেশ কিছুদিন হালকা ব্যথা হয়তো থাকবে। সত্যি বলতে নিজের শরীরের প্রতি যত্নশীল হওয়া ছাড়া আপাতত সেটা নিয়ে আমার কিছু করার নেই।” 

    ভারত-ইংল্যান্ড সিরিজের শেষ টেস্টে স্রোতের বিপরীতে ইংল্যান্ড না জিতলে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে খেলা হবেনা অজিদের। সেক্ষেত্রে হয়তো এই বছরের একদম শেষের দিকে গিয়েই টেস্ট খেলতে হবে ওয়ার্নারকে। তবে তার আগে অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া মৌসুম এবং এপ্রিলে আইপিএলে বেশ ব্যস্ত সময়ই যাবে তার।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন