• পাকিস্তান-শ্রীলংকা সিরিজ
  • " />

     

    পাকিস্তান যেতে রাজি নন শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটাররা!

     

    এই মাসের শেষেই তৃতীয় টি-টোয়েন্টি খেলতে লাহোরে যাওয়ার কথা ছিল শ্রীলঙ্কার। সেই লাহোরে, আট বছর আগে যেখানে এক শ্রীলঙ্কার বাসেই সন্ত্রাসী হামলার পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের দরজা বন্ধ হয়ে যায় পাকিস্তানে। কিন্তু ক্রিকবাজ জানাচ্ছে, বোর্ডের সঙ্গে চুক্তিভুক্ত ৪০ জন শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটার পাকিস্তানে যেতে চান না জানিয়ে চিঠি দিয়েছেন। শ্রীলঙ্কার পাকিস্তানে যাওয়াও এখন সংশয়ে।

    নয় বছর আগে লাহোরে ওই হামলার পর শুধু জিম্বাবুয়েই একবার এসেছিল পাকিস্তানে। তবে সেখানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরানোর উদ্যোগ শুরু হয়েছে আবার। এবারের পিএসএলের ফাইনালের পর কদিন আগে লাহোরে তিনটি টি-টোয়েন্টি খেলে গেছে বিশ্ব একাদশও। সেই ধারাবাহিকতার অংশ হিসেবেই পাকিস্তানের সঙ্গে সিরিজের শেষ টি-টোয়েন্টি খেলতে এই মাসের শেষে লাহোরে যাওয়ার কথা ছিল শ্রীলঙ্কার। কিন্তু তাতে রাজি নন শীর্ষ সব ক্রিকেটারই। এর মধ্যে বোর্ডের কাছে চিঠি দিয়ে ভেন্যু পরিবর্তনেরও দাবি জানিয়েছে। ক্রিকবাজ জানাচ্ছে, শুধু একজন ক্রিকেটারই সেই চিঠিতে সই করেননি। কদিন আগেই বিশ্ব একাদশের হয়ে খেলে গেছেন থিসারা পেরেরা, তাঁর সই না করার কারণও অনুমান করা যায়।

    এই চিঠিতে এখন বিপাকে পড়ে গেছে শ্রীলঙ্কা বোর্ড। তারা এর মধ্যেই খেলোয়াড়দের সঙ্গে বসার উদ্যোগ নিয়েছে। শ্রীলঙ্কা বোর্ডের এক সূত্র জানিয়েছে, পাকিস্তান বোর্ডের সঙ্গে তারা সম্পর্ক নষ্ট করতে চায় না। লাহোরে খেলার ব্যাপারে সব ধরনের উদ্যোগও তারা নেবে। এমনও শোনা যাচ্ছে, শীর্ষ ক্রিকেটাররা রাজি না হলে দ্বিতীয় সারির দলও পাঠাতে পারে শ্রীলঙ্কা।

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন