• বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ
  • " />

     

    হাথুরুর বিদায়ে অবাক মুশফিকও

    এখন আনুষ্ঠানিক কোনো ঘোষণা আসেনি, সরাসরি কেউ তাই মুখ খুলছেন না। চন্ডিকা হাথুরুসিংহের পদত্যাগ নিয়ে আর সবার মতো টেস্ট অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমও সতর্ক। তবে এর মধ্যেই বলেছেন, এই সিদ্ধান্তে আর সবার মতো তিনিও অবাক।

    সর্বশেষ দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের সময়ই মুশফিক কোচকে কাঠগড়ায় তুলেছিলেন পরোক্ষে। টিম ম্যানেজমেন্টের নির্দেশে তাঁকে ফাইন লেগে খেলতে হয়, এমন কিছু জানিয়ে তোলপাড়ও ফেলে দিয়েছিলেন। পরে তো বেশ কয়েকজন সিনিয়র খেলোয়াড়ের সঙ্গে মনোমালিন্যের জেরে কোচ পদ ছেড়েছেন, শোনা যাচ্ছিল এমন কথাও।

     

     

    রাজশাহী কিংসের ম্যাচের পর সংবাদ সম্মেলনে মুশফিক অবশ্য এই কথিত চাপান উতোর নিয়ে প্রশ্নটা ছেড়ে দিলেন, ‘ এটা যার যার ব্যক্তিগত ব্যাপার। উনি যদি মনে করেন কোনো সুনির্দিষ্ট ক্রিকেটার বা দলের কারও ওপর খুশি নন, তাহলে সেটা আলাদা ব্যাপার। সত্যি বলতে আমরা জানি না উনি কেন এটা করেছেন। উনি নিজেও কোনো বিবৃতি দেননি কারণ জানিয়ে। উনি না আসা পর্যন্ত আমাদের কাছেও পরিস্কার নয়, আপনাদের কাছেও নয়। উনি আসলে বোর্ডের সঙ্গে বসে যেটা ঠিক করবেন, সেটাই হয়ত হবে।’

     

    তবে আর সবার মতো তিনিও যে অবাক, সেটা স্বীকার করলেন, ‘ আর সবার মত আমিও শকড। কারণ শেষ সফরেও আমরা একসঙ্গে ছিলাম, এক সঙ্গে কাজ করেছি। জানি না কি কারণে হয়েছে। তবে সেটার দায়িত্বে বিসিবি আছে। এখন বিপিএল চলছে, অনেক বড় টুর্নামেন্ট। এর ভেতরে আমরা এখানেই মনোযোগ দিচ্ছি। বাইরের যা কিছু আছে, বিসিবির কাজ করছে। সব ঠিকঠাক হয়ে গেলে ভালো। না হলে সেটা বিসিবি ও কোচের ব্যাপার। কারণ আমরা শেষ সফরে ছিলাম। জানিও না কখনও কিভাবে এটা হলো। আমি কোনো মন্তব্য করতে পারব না। যেটাই হবে, আশা করি, আল্লাহ যা করবেন, ভালোর জন্যই করবেন। যত তাড়াতাড়ি সমাধান হয়, তত ভালো। বিপিএলের পর খুব দ্রুতই আমাদের সিরিজ আছে। যেটাই হোক, যেন খুব তাড়াতাড়ি মীমাংসা হয়।'

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন