• আইপিএল ২০২০
  • " />

     

    মুখোমুখি সালমা-জাহানারা : একলস্টোনের ৯ রানে ৪ উইকেটে ট্রেইলব্লেজারসে বিধ্বস্ত ভেলোসিটি

    মুখোমুখি সালমা-জাহানারা : একলস্টোনের ৯ রানে ৪ উইকেটে ট্রেইলব্লেজারসে বিধ্বস্ত ভেলোসিটি    

    ভেলোসিটি ৪৭-১, ১৫.১ ওভার (শাফালি ১৩, একলস্টোন ৪/৯, ঝুলন ২/১৩, গায়কোয়াড় ২/১৩, দিপ্তি ১/৮)
    ট্রেইলব্লেজারস ৪৯-১, ৭.৫ ওভার (ডটিন ২৯*, রিচা ১৩*, কাসপেরেক ১/৫)


    সালমা খাতুনের টসড-আপ ডেলিভারিটা কাভারে খেলে সিঙ্গেল নিলেন জাহানারা আলম, সালমার সেটি দ্বিতীয় ওভার। টি-টোয়েন্টি লিগে মুখোমুখি বাংলাদেশের দুই তারকা, তবে সে দ্বৈরথ বেশিক্ষণ দেখার সুযোগ মিললো না। বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ককে এরপর আর বোলিং করতে হলো না, ব্যাটিং-ও না। এর আগেই যা হওয়ার হয়ে গেল জাহানারাদের। আগের ম্যাচে দারুণ পারফরম্যান্সে জয়ের পর এবার টি-টোয়েন্টির এক নম্বর বোলার সোফি একলস্টোন ও ট্রেইলব্লেজারসের সামনে পড়ে ৪৭ রানেই গুটিয়ে গেল সুপারনোভা। স্মৃতি মান্ধানার উইকেট হারালেও ডিয়েন্দ্রা ডটিন ও রিচা ঘোষে ভর করে সে লক্ষ্য সহজেই পেরিয়ে গেল ট্রেইলব্লেজারস, ফাইনালেও এক পা দিয়ে রাখলো। ফাইনালের জন্য এখন সুপারনোভাকে তাকিয়ে থাকতে হবে ট্রেইলব্লেজারসের সঙ্গে ভেলোসিটির ম্যাচের দিকে। 

    দিনের ম্যাচ, আগেরদিন ব্যাটারদের আত্মবিশ্বাসের কথা ভেবে এদিন টসে জিতে আগে ব্যাটিং নিয়েছিলেন ভেলোসিটি অধিনায়ক মিথালি রাজ। প্রথম দুই ওভার সবকিছু ঠিকঠাকই ছিল তাদের, ঝুলন গোস্বামির বলে চার, একলস্টোনের বলে ছয় মেরে উড়ন্ত শুরুই এনে দিয়েছিলেন শাফালি ভার্মা। পরে ঝুলনের বলে বোল্ড হয়েই ফিরতে হয়েছে তাকে। তখনও ঠিক সব গড়বড় হয়ে যায়নি তাদের।


    টি-টোয়েন্টির এক নম্বর বোলার একলস্টোনের তোপের মুখে পড়েছেন জাহানারারা/আইপিএল


    তবে তৃতীয় ওভার থেকে সব এগিয়েছে ফাস্ট-ফরোয়ার্ড মোডে, একলস্টোনের বলে ক্রিজে আটকে থেকে মিথালি এলবিডব্লিউ হওয়ার পর থেকে। একলস্টোন এরপর দাঁড়িয়ে গেছেন হ্যাটট্রিকের সামনে, জাহানারার উইকেট যতক্ষণে নিলেন, ততক্ষণে ভেলোসিটির সব শেষ। তার বল স্কিড করেছে, ব্যাকফুটে থেকে বা ক্রিজে আটকে থেকে তাকে খেলার ভুল করে গেছেন মিথালিরা। একলস্টোনের সবকটি উইকেটই এসেছে বোল্ড বা এলবিডব্লিউ থেকে। শুরুতে মিথালি ও শেষে জাহানারা এলবিডব্লিউ, মাঝে বোল্ড হয়েছেন ভেদা কৃষ্ণামূর্তি ও সুষ্মা ভার্মা। 

    অন্যদিক থেকে ঝুলন, রাজেশ্বরী গায়কোয়াড়, দীপ্তি শর্মারাও চড়াও হয়েছেন ভেলোসিটির ওপর। পাওয়ারপ্লেতেই ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলা ভেলোসিটি আটকে গেছে ১৬তম ওভারেই। শাফালির পর দুই অঙ্ক ছুঁয়েছেন শুধু শিখা পান্ডে ও লেই কাসপেরেক। ৯ রানে ৪ উইকেটের বোলিং ফিগার নিয়ে ইনিংস শেষ করেছেন একলস্টোন। 

    ট্রেইলব্লেজারসকে এ রানে আটকে রাখতে হলে রীতিমতো অলৌকিক ধরনের কিছু করতে হতো ভেলোসিটিকে, তারা শুধু নিতে পারলো অধিনায়ক মান্ধানার উইকেট। তবে ডটিনের উপস্থিতি বলে দিচ্ছিল, খুব একটা সময় নেবে না ট্রেইলব্লেজারস। চতুর্থ ওভারে কাসপারেকের বলে মিড-অনে ক্যাচ তুলে ফিরেছিলেন মান্ধানা। তবে ডটিন আর রিচাকে আটকাতে পারেননি আর মিথালিরা। ৩ চারে ২৮ বলে ২৯ রানে অপরাজিত ছিলেন ডটিন, রিচা ১০ বলে ১৩ রান করেছেন একটি করে চার ও ছয়ে। 

    শনিবার ট্রেইলব্লেজারসের মুখোমুখি হবে সুপারনোভা, ফাইনালে যেতে সে ম্যাচ জিততে হবে সুপারনোভাকে। আর সুপারনোভা হারলে এমন বাজে পরাজয়ের দায়মোচনের সুযোগ পাবে ভেলোসিটি, সেক্ষেত্রে ফাইনালে যাবে তারাই। সেক্ষেত্রে আরেকবার দেখা যাবে সালমা-জাহানারা দ্বৈরথ।


     

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন