• " />

     

    ২৬ বছর বয়সেই অবসর!

    গত বছর তাঁর কল্যাণেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ঐতিহাসিক জয় পেয়েছিল দল। ১৭ বছর অপেক্ষার পর ম্যাট ম্যাচানের ৪ বলে ১৫ রানের ইনিংসেই হংকংকে হারিয়েছিল স্কটল্যান্ড। এবার সেই ম্যাচানই স্কটিশ ভক্তদের শোনালেন মন খারাপ করা খবর। মাত্র ২৬ বছর বয়সেই ইনজুরির কারণে ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন তিনি।

    ২০১৩ সালে জাতীয় দলের জার্সি গায়ে ওঠে। ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি মিলিয়ে ম্যাচ খেলেছেন মাত্র ৩৬ টি। ২০১৫ বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে দলীয় সর্বোচ্চ ৪০ ও ৫৬ রান করেন। এই বছরের শুরু থেকেই কবজির ইনজুরিটা ভোগাচ্ছিল ম্যাচানকে। শেষ পর্যন্ত এই ইনজুরির কাছেই হার মানতে হলো তাকে।

    ম্যাচান বলছেন, ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করেই ক্রিকেট ছাড়ছেন, “খুব দুঃখের সাথে সবাইকে জানাতে চাই, কবজির ইনজুরির কারণে আমি ক্রিকেটকে বিদায় বলতে বাধ্য হচ্ছি। ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী, আমার ভবিষ্যৎ জীবনের জন্য এই সিদ্ধান্তটা নেওয়া জরুরী ছিল। একজন  ভালো ব্যাটসম্যান হিসাবে আমি মাত্রই নিজেকে দাঁড় করাতে শুরু করেছিলাম। এরকম অবস্থায় বিদায় বলাটা সহজ নয়। জাতীয় দল ও সাসেক্সকে আরও অনেক কিছুই দেওয়ার ছিল আমার।”  

     

     

    সাসেক্সের হয়ে সব ফরম্যাট মিলিয়ে ৫০০০ এর বেশি রান করেছেন ম্যাচান, আছে ৭ টি সেঞ্চুরিও। তাঁর এই আকস্মিক বিদায়টা মেনে নিতে পারছেন না ক্লাব পরিচালক কিথ গ্রিনফিল্ড, “ ম্যাট আমাদের সাথে ১০ বছর বয়স থেকে আছে। এটা খুব কষ্টের ব্যাপার যে তাকে আর সাসেক্সের হয়ে খেলতে দেখা যাবে না। আমরা তাকে শুধু শুভকামনাই জানাতে পারি পরবর্তী জীবনের জন্য। সে সুস্থ থাকুক এটাই চাই।”

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন