• নিউজিল্যান্ড-ভারত ওয়ানডে সিরিজ
  • " />

     

    'ধোনির অবসর নিয়ে অন্যদের মাথা ঘামানোর দরকার নেই'

     

    ‘ধোনি না থাকলে দল তাকে মিস করবে না’, তিনদিন আগে ভিভিএস লক্ষণ বলেছিলেন এমনটাই। তাঁর জবাবে অবশ্য আরেক সাবেক ভারতীয় ব্যাটসম্যান বিরেন্দর শেহওয়াগ বলেছেন, এখনও ধোনির বিকল্প কেউ নেই। এবার সিরিজ জয়ের পর দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি জানালেন, ধোনির অবসর নিয়ে অন্যদের মাথা ঘামানোর প্রয়োজন দেখছেন না তিনি। 

     

    দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে ধীর গতির ব্যাটিংয়ের জন্য অনেক সমালোচনা শুনছেন ধোনি। অনেকে তো এই ফরম্যাটে তাঁর শেষটাও দেখে ফেলেছেন, পরামর্শ দিচ্ছেন সরে দাঁড়ানোর। কোহলি অবশ্য এসবে খানিকটা বিরক্ত, “আমি বুঝতে পারছি না মানুষ তাঁর দিকে আঙুল তুলছে কেনও! আমি যদি তিন ম্যাচে ভালো না করি তাহলে আমার দিকে কেউ আঙুল তুলবে না কারণ আমার বয়স ৩৫ এর কম। ধোনি দারুণ ফিট একজন ক্রিকেটার, ফিটনেস পরীক্ষায় উতরেই তিনি একাদশে আছেন।”

     

     

     

    কোহলি বলছেন, সবদিক দিয়েই ধোনি দলে ভূমিকা রাখেন, “ব্যাটিং, কিপিং কিংবা কৌশল নির্ধারণ, তিনি যেভাবে পারছেন দলকে সাহায্য করছেন। শ্রীলংকা, অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজেও তো রান পেলেন, এই সিরিজে ব্যাটিংয়ের জন্য পর্যাপ্ত সময়ই পাননি। যে পজিশনে তিনি ব্যাটিংয়ে নামেন, সেখানে রান করা কঠিন। সেদিন তো পান্ডিয়াও রান করতে পারেনি। শুধু একজনকে লক্ষ্য করে মন্তব্য করা একদমই উচিত নয়। ম্যাচের ওরকম পরিস্থিতিতে রান তোলাও সহজ ছিল না শুরুর মতো। এটাও বুঝতে হবে।”

     

    ধোনির অবসর নিয়ে অন্য কাউকে ভাবতে হবে না বলেই মানছেন কোহলি, “ধোনি খেলাটাকে খুব ভালো বোঝেন। কিন্তু সবদিন তো আর সমান যাবে না। খারাপ দিন আসতেই পারে। দিল্লীতে তিনি যে ছয় মেরেছিলেন সেটা পরের ম্যাচের আগে ৫-৬ বার দেখানো হয়েছিল, সবাই আনন্দও পেয়েছে। এরপর এক ম্যাচে ভালো করতে পারেননি বলেই সবাই তাঁর পিছে লেগেছে! সবাইকে বলবো ধৈর্য ধরতে। তিনি নিজের ব্যাপারে সবচেয়ে ভালো জানেন। তাই তাঁর সিদ্ধান্ত তাঁকেই নিতে দিন।”

    প্রিয় প্যাভিলিয়ন পাঠক, 

    কোভিড-১৯ মহামারি বিশ্বের আরও অনেক কিছুর মতো অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে ক্রীড়াঙ্গনকে। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে নতুন এক সংকটের মুখোমুখি হয়েছি আমরাও। প্যাভিলিয়নের নিয়মিত পাঠক এবং শুভানুধ্যায়ী হিসেবে আপনাদের কাছে অনুরোধ থাকবে আমাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আপনার ছোট বা বড় যেকোনো রকম আর্থিক অনুদান আমাদের এই কঠিন সময়ে মূল্যবান অবদান রাখবে।

    ধন্যবাদান্তে,
    প্যাভিলিয়ন