• ক্রিকেট

এ যেন বাংলার বেন স্টোকস মেহেদী হাসান মিরাজ

পোস্টটি ১১৬৩ বার পঠিত হয়েছে
'আউটফিল্ড’ একটি কমিউনিটি ব্লগ। এখানে প্রকাশিত সব লেখা-মন্তব্য-ছবি-ভিডিও প্যাভিলিয়ন পাঠকরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে নিজ উদ্যোগে করে থাকেন; তাই এসবের সম্পূর্ণ স্বত্ব এবং দায়দায়িত্ব লেখক ও মন্তব্য প্রকাশকারীর নিজের। কোনো ব্যবহারকারীর মতামত বা ছবি-ভিডিওর কপিরাইট লঙ্ঘনের জন্য প্যাভিলিয়ন কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে না। ব্লগের নীতিমালা ভঙ্গ হলেই কেবল সেই অনুযায়ী কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নিবেন।

মনে কী পরে ২০১৯ সালের সেই টেস্ট ম্যাচের কথা ?

যে টেস্টে নিজেদের প্রথম ইনিংসে মাত্র ৬৭ রানে গুটিয়ে যায় ইংল্যান্ড। গেল ১৩২ বছরে এক ইনিংসে এত কম রান করে টেস্ট জিততে পারেনি কোনো দল। তবে সেটিই করে দেখিয়েছেন ইংলিশরা।ইংলিশরা বললে ভুল হবে করে দেখিয়েছেন বেন স্টোকস ।

 

নিজেদের প্রথম ইনিংসে অস্ট্রেলিয়া অলআউট হয় ১৭৯ রানে। দ্বিতীয় ইনিংসে ২৪৬ রান করেন অজিরা। ফলে জয়ের জন্য স্বাগতিকদের লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩৫৯ রান। খেলতে নেমে মাত্র ২৮৬ রানে ৯ উইকেট হারিয়ে ফেলেন তারা।

তখনও দরকার ছিল ৭৬ রান। এর ৭৪ রানই করেন স্টোকস। সেখানে মাত্র ১ রান করে অপরাজিত থাকেন জ্যাক লিচ। শেষ পর্যন্ত তার হার না মানা ১৩৫ রানের ইনিংসে ১ উইকেটের শ্বাসরুদ্ধকর জয় পায় ইংল্যান্ড। রোমাঞ্চকর-নাটকীয় এ জয়ে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ঐতিহাসিক ৫ ম্যাচ অ্যাশেজ সিরিজে তিন টেস্ট শেষে ১-১ সমতায় এনেছিল ইংলিশরা।

 

আরো এক রোমাঞ্চকর ম্যাচের সাক্ষী হলো ক্রিকেট বিশ্ব  । এ যেন ফুটবল বিশ্বকাপের মতো টান টান উত্তেজনা । বিজয়ের মাসে আরেক বিজয় বাংলাদেশের । 

 

১৩৬ রানে ৯ উইকেট হারিয়ে দিশেহারা বাংলাদেশ।

পরপর দুই বলে সিনিয়র দুই ক্রিকেটার আউট । ততক্ষণে দর্শকরা মাঠ ছাড়তে শুরু করে দিয়েছে । মনে হচ্ছিল ভারতের জয় সময়ের মাত্র । কিন্তু তখনি আবির্ভাব হলো মেহেদী হাসান মিরাজ , এ যেন বাংলার বেন স্টোকস । ৫১ রান দৃরে ছিল বাংলাদেশ , হাতে এক উইকেট । মিরাজ মুস্তাফিজের  অসাধারণ পার্টনারশিপ । এবারেও মনে হচ্ছিল তীরে এসে তরী ডুবাবে বাংলাদেশ, কিন্তু  এবার আর তা হয় নি  , মেহেদীর অনবদ্য ৩৯ রান । বাংলাদেশের ১ উইকেটের জয় । 

 

এর আগে নিয়মিত ক্যাপ্টেনের ইনজুরিতে নতুন ক্যাপ্টেন লিটন দাস টসে জিতে  বোলিং এর   সিদ্ধান্ত নেন ।  ভারতের ডেরায় প্রথম থাবা সেই মিরাজের  এরপর যেন সাকিব ঝলক , ১১ তম অভারে রোহিত কে বোল্ড, এরপর লিটনের  অনবদ্য ক্যাচে ফর্মে থাকা বিরাট কোহলির পতন । এদিন সাকিব ৫ উইকেট শিকার করেন , বোলিং এ ফিজ ও ছিলো অসাধারণ, এবাদতের শিকার ৪ উইকেট  । 

 

তবে ম্যাচের সব আলো সেই মিরাজের দিকে , অবিশ্বাস্য এক জয়  , এ যেন বাংলার বেন স্টোকস । 

ধন্যবাদ মেহেদী হাসান মিরাজ, আপনাকে অনেকদিন মনে রাখবে বাংলার ক্রিকেট