• ফুটবল

ফ্যান্টাসি প্রিভিউ গেমউইক-৩

পোস্টটি ৩২৭৮ বার পঠিত হয়েছে
'আউটফিল্ড’ একটি কমিউনিটি ব্লগ। এখানে প্রকাশিত সব লেখা-মন্তব্য-ছবি-ভিডিও প্যাভিলিয়ন পাঠকরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে নিজ উদ্যোগে করে থাকেন; তাই এসবের সম্পূর্ণ স্বত্ব এবং দায়দায়িত্ব লেখক ও মন্তব্য প্রকাশকারীর নিজের। কোনো ব্যবহারকারীর মতামত বা ছবি-ভিডিওর কপিরাইট লঙ্ঘনের জন্য প্যাভিলিয়ন কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে না। ব্লগের নীতিমালা ভঙ্গ হলেই কেবল সেই অনুযায়ী কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নিবেন।

প্রিমিয়ার লিগের ৩৮ রাউন্ডের মধ্যে ইতোমধ্যেই সমাপ্ত হয়েছে ২ রাউন্ডের খেলা। থেমে নেই মাঠের বাইরের খেলাও। ফ্যান্টাসি প্রিমিয়ার লিগও এগিয়ে চলেছে একই উদ্যমে। পয়েন্ট তালিকায় নিজের নামটা শীর্ষে দেখে কারো মুখে যেমন হাটের সবচেয়ে বড় গরুটি কিনে বাড়ি ফেরার হাসি, তেমনি আবার দলের শোচনীয় পারফরম্যান্সে কারো আবার মাথায় হাত। চড়া দামে কেনা কেন-হেসুস-ডি ব্রুইনরা যেদিকে হতাশ করছেন, সেদিকে রীতিমত পানির দামে পাওয়া হেগাজী-রিচার্লিসন-মুনিরা আছেন পয়েন্টদাতাদের তালিকার উপরের দিকে। ফ্যান্টাসিকে কেন অনিশ্চয়তার খেলা বলা হয়- তা বুঝতে আর বাকি থাকার কথা নয়...

 

প্রথম দুই সপ্তাহের ‘হিরো’রাঃ

ফ্যান্টাসিতে শুরুটা কেউই খুব একটা বাজি নিয়ে করতে চাননা। সেজন্যই পগবা, ডি ব্রুইন, কেন, লুকাকু, আগুয়েরোরা থাকেন পছন্দের শীর্ষে। এবারও ব্যতিক্রম হয়নি। নিজেদের দামের যথার্থতা জাহির করে মালিকদের উড়ন্ত সূচনা এনে দিয়েছেন ডি গেয়া, ফরস্টার, বাই, আলোন্সো, ডেভিস, লুকাকু, মিখিতারইয়ান, এরিকসেন, মাহরেজ, মানে, সালাহ, সিলভা, রুনি, পগবা, মার্শিয়াল, ভার্ডি, চিচারিতো, মোরাতারা।

চমকের অভাব হয়নি এবারও। ৪.৫-৬.০ এর মধ্যে দাম হলেও ব্রিটস, লসি, বাটল্যান্ড, হেনেসি, হেগাজী, জাঙ্কা, শিন্ডলার, লো, নিওম, মুনি, ওকাজাকি, ভোকস, রিচার্লিসন, মই, দুকুরে, ব্রান্টরা। পুরষ্কারস্বরূপ দাম বেড়েছে সবারই।

 

প্রথম দুই সপ্তাহের ‘জিরো’রাঃ

“জিনিস যেটা ভাল, দাম তার একটু বেশিই”- আবুল হায়াতের বিখ্যাত এই উক্তি মার খেয়ে যায় ফ্যান্টাসির মাঠে। দাম বেশি হলেই যে ভাল পয়েন্ট আনবেন তারকারা, তা সবসম নিশ্চিত করে বলা যায়না। কেনের কথাই ধরুন। মৌসুমের দুই ম্যাচ হয়ে গেলেও কেন পেয়েছেন মাত্র ২ পয়েন্ট। কেনের মত ২ পয়েন্ট পেয়েছেন গ্যাব্রিয়েল হেসুসও। ডি ব্রুইনও দুই ম্যাচ মিলিয়ে পেয়েছেন কেবল ৫ পয়েন্ট। হতাশ করেছেন কম্পানি, ওয়াকার, বেলেরিন, অ্যাজপিলিকুয়েতা, কাহিল, স্টার্লিং, ওজিল, পেদ্রো, সানেরা। এফপিএল-এর নিয়ম অনুযায়ী, ইঞ্জুরিতে পড়া খেলোয়াড়দের পাশাপাশি দাম কমেছে উপরিউল্লিখিত অনেকেরই।

 

তৃতীয় সপ্তাহে যাদের রাখতে পারেনঃ

দল গঠনের আগে তিনটি জিনিস অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবেঃ যাদের নিচ্ছেন সবাই যেন ফিট এবং ফর্মে থাকা আর যাদের ফিক্সচার সহজতর দলগুলোর সাথে। ফর্মে কারা আছেন তাদের কথা আগেই বলেছি। এখন সিদ্ধান্ত আপনার। ক্যাপ্টেন দেওয়ার ক্ষেত্রে কেনের কথা মাথায় রাখা উচিত। পয়েন্চাটের অবস্ইথা বেশি খারাপ হলে চাইলে ওয়াইল্ডকার্ড খেলে দল বদলে নিতে পারেন একেবারে। সেক্ষেত্রেও অবশ্য সাবধান, বুঝেশুনে খেলতে হবে কারণ পুরো দলবদলের এই সুবর্ণ সুযোগ আবার পাবেন জানুয়ারি থেকে। আগামীকাল বিকাল ৪.৩০টায় বন্ধ হয়ে যাবে দলে পরিবর্তন আনার সুযোগ।