• ফুটবল

ফ্যান্টাসি প্রিভিউ গেমউইক-৬

পোস্টটি ৪৬৪৮ বার পঠিত হয়েছে

১৭-১৮ প্রিমিয়ার লিগ মৌসুমের ইতোমধ্যেই ৫ রাউন্ডের খেলা শেষ। সমানসংখ্যক পয়েন্ট এবং গোল ব্যবধান নিয়ে যৌথভাবে শীর্ষে আছে পেপ গার্দিওলার ম্যানচেস্টার সিটি এবং হোসে মরিনহোর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ম্যানচেস্টারের দুই দলের বিষ্ফোরক সূচনায় মাত্র পাঁচ ম্যাচ শেষেই শিরোপাটা ম্যানচেস্টারে থাকবে- এমনটাই জোর বিশ্বাস অধিকাংশ ফুটবল অনুরাগী এবং পন্ডিতদের।

 

মাঠের ভেতরের কথা তো হল। এবার মাঠের বাইরের ‘ফ্যান্টাসি প্রিমিয়ার লিগ’-এর ব্যাপারে আলোকপাত করা যাক। পাঁচ সপ্তাহ শেষে যেমন অনেকের মুখে তৃপ্তির হাসি, তেমনি আবার হতাশায় ভোগা ম্যানেজারের সংখ্যাও কম নয়। প্রত্যাশিত পয়েন্ট না পাওয়ায় ‘ওয়াইল্ডকার্ড’ খেলে খোলনলচে দল বদলে ফেলেছেন অনেকেই। ইপিএল-এ আগামীকাল ষষ্ঠ গেমউইকের খেলা মাঠে গড়াতে যাচ্ছে। আসুন দেখে নেওয়া যাক কোন দলগুলোর ফিক্সচার সহজতর এবং ফর্মে আছেন কোন তারকারা...

 

গোলরক্ষকদের মধ্যে সেরাফ্যাবিয়ানস্কিঃ

পাঁচ সপ্তাহ শেষে ‘এফপিএল’-এ গোলরক্ষকদের মধ্যে পেন্টের দিক দিয়ে শীর্ষে সোয়ানসি সিটির লুকাস ফ্যাবিয়ানস্কি (৪.৫)। পাঁচ ম্যাচ শেষে ২৯ পয়েন্ট নিয়ে গোলরক্ষকদের মধ্যে শীর্ষে আছেন তিনি। এছাড়া নিউক্যাসলের রব এলিয়টও (৪.১) আছেন দারুণ ফর্মে। সামনের ফিক্সচার সহজ হওয়ায় এই দুজনের যেকোনো একজন হতে পারে আপনার তুরুপের তাস। প্রায় একই দামে পাবেন বেন ফস্টার এবং জো হার্টকে (৪.৫)। আরেকটু খরুচে হলে দলে নিতে পারবেন ফরস্টার (৫.০), ডি গেয়া, চেকদের (প্রত্যেকে ৫.৫)।

 

রক্ষণে ফুলব্যাকদের জয়জয়কারঃ

এফপিএল-এ সেন্টারব্যাকদের থেকে ফুলব্যাকদের দলে নেওয়াটা যে অধিক কার্যকরী- নতুন মৌসুমের প্রথম পাঁচ সপ্তাহে তা প্রমাণিত হল আবারও। যথক্রমে ৩৬ এবং ৩২ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছেন আন্তোনিও ভ্যালেন্সিয়া (৬.৫) এবং বেন ডেভিস (৫.৭)। ফিক্সচার অনুযায়ী বিচার করলে সোয়ানসি, সাউদাম্পটন, নিউক্যাসল এবং ম্যান সিটির ডিফেন্ডারদের নেওয়াটা হবে অধিক ফলপ্রসূ। সেক্ষেত্রে কাইল নটন (৪.৫), সেড্রিক (৫.০), লাসেলসরা (৪.৬) হতে পারেন আপনার বাজির ঘোড়া। 

ভ্যালেন্সিয়াদের মত পারফরম্যান্সের কারণে আলোন্সো (৭.১), ওতামেন্দি (৫.৬), কোলাসিনাচ (৬.০), হেগাজীদের (৪.৯) দলে ভেড়াতে হূমড়ি খেয়ে পড়েছেন ম্যানেজাররা।

 

পগবা, মানের বিকল্প কে?:

চ্যাম্পিয়নস লিগে বাসেলের বিপক্ষে হ্যামস্ট্রিং-এর ইঞ্জুরিতে পড়ে প্রায় মাস দেড়েকের জন্য মাঠের বাইরে চলে গেছেন পল পগবা। তার বদলি হিসেবে পছন্দের শীর্ষে আছেন হেনরিখ মিখিতারইয়ান (৮.৫)। ওদিকে ম্যান সিটির বিপক্ষে লজ্জাজনক হারে লাল কার্ড দেখে তিন ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা পেয়েছেন সাদিও মানে (৯.৫)। মানের বদলে মোহাম্মদ সালাহর (৯.২) দিকে ঝুঁকছেন অনেকেই। এছাড়া ক্রিশ্চিয়ান এরিকসেন (৯.৭), ড্যালে আলি (৯.৫), কেভিন ডি ব্রুইন (৯.৯), ডেভিড সিলভা (৮.৩), ম্যাট রিচিদের (৬.০) দলে নেওয়ার হিড়িক পড়েছে রীতিমত।

‘ছোট দলের বড় খেলোয়াড়’ হিসেবে নজর কেড়েছেন ব্রাইটনের প্যাস্কেল গ্রস (৫.৬) এবং হাডার্সফিল্ডের অ্যারন মই (৫.৭)। স্টোকের এরিক-ম্যাক্সিম চুপো-মতিংও (৫.৬) আছেন দারুণ ফর্মে। মিডফিল্ডার হিসেবে তালিকাভুক্ত হলেও স্ট্রাইকার হিসেবে খেলায় তার চাহিদা বাড়ছে প্রতিদিনই।

দলবদলের বাজারের নাটকের পর দলে ফিরেছেন কুতিনহো (৮.৮)এবং অ্যালেক্সিস সানচেজ (১১.৯)। এছাড়া ইঞ্জুরির কারণে এতদিন ম্যানেজারদের 'ব্রাত্য'ই হয়ে ছিলেন গত মৌসুমের অন্যতম সেরা এই দুই তারকা। তবে এখন ফিক্সচার মোটামুটি সহজ থাকায়  তাদের দলে নিচ্ছেন অনেকেই। ইঞ্জুরি কাটিয়ে দলে ফিরেছেন গত মৌসুমের আরেক তারকা এডেন হ্যাজার্ড (১০.৫)।

টু আগুয়েরো অর নট টু আগুয়েরোঃ

গত মৌসুমে গ্যাব্রিয়েল হেসুসকে (১০.৫) খেলানোর জন্য বেশকিছু ম্যচে তাকে বেঞ্চে বসিয়ে রেখেছিলেন পেপ গার্দিওলা। তবে নতুন মৌসুমের শুরু থেকেই আগুয়েরো-হেসুস উভয়কেই খেলাচ্ছেন গার্দিওলা। ফলাফলটাও পাচ্ছেন হাতেনাতেই। প্রায় প্রতি ম্যাচেই গোল পাচ্ছেন ইপিএল-এর সেরা এই স্ট্রাইকার জুটি। সেই সাথে গত সপ্তাহে ওয়াটফোর্ডের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করায় আগুয়েরোকে (১১.৬) নিতে ওয়াইল্ডকার্ডের পাশাপাশি ‘মাইনাস হিট’-ও নিচ্ছেন অনেকেই। ৪১ পয়েন্ট নিয়ে এবারের এফপিএল-এর এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ পয়েন্টধারী তারকাকে ইতোমধ্যেই দলে ভিড়িয়েছেন সাত লক্ষেরও অধিক ম্যানেজার। আগুয়েরোর মতই মোরাতাকেও দলে নিয়েছেন প্রায় সাত লক্ষ এফপিএল খেলোয়াড়। আরেক নবাগত আর্সেনালের লাকাজেতকে (১০.৩) দলে নিয়েছেন প্রায় দেড় লক্ষাধিক ম্যানেজার।

আগুয়েরোর মত ফিরমিনো (৮.৭), চিচারিতোদের (৭.০) দলে নিচ্ছেন অনেকেই। লুকাকুর (১১.৭) কথা না বললেই নয়। পাঁচ ম্যাচের চারটিতেই গোল পেয়েছেন এই বেলজিয়ান। এখনো সেভাবে জ্বলে উঠতে না পারলেও এবারের এফপিএল-এর সবচেয়ে দামী খেলোয়াড় হ্যারি কেনের (১২.৫) ওপর আস্থা হারাচ্ছেন না ম্যানেজাররা। 

আগামীকাল বাংলাদেশ স্থানীয় সময় বিকাল ৪.৩০টা পর্যন্ত দলবদল করা যাবে। ফিক্সচার দেখে, খেলোয়াড়দের ফর্ম বিচার করে দল গঠন করুন।

 

হ্যাপি ফ্যান্টাসিং!

'প্যাভিলিয়ন ব্লগ’ একটি কমিউনিটি ব্লগ। প্যাভিলিয়ন ব্লগে প্রকাশিত লেখা, মন্তব্য, ছবি এবং ভিডিওর সম্পূর্ণ স্বত্ব এবং দায়দায়িত্ব লেখক এবং মন্তব্য প্রকাশকারীর নিজের। কোনো ব্যবহারকারীর মতামত বা ছবি-ভিডিওর কপিরাইট লঙ্ঘনের জন্য প্যাভিলিয়ন কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে না। ব্লগের নীতিমালা ভঙ্গ হলেই কেবল সেই অনুযায়ী কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নিবেন।