• ওয়েস্ট ইন্ডিজ-ভারত সিরিজ
  • " />

     

    • ওয়েস্ট ইন্ডিজ-ভারত সিরিজ

    বিশ্বকাপ-সেমিফাইনালের ঘোর কাটছে না কোহলির

    বিশ্বকাপের পর কেটে গেছে তিন সপ্তাহেরও বেশি সময়। তবে দুঃস্বপ্নেরটা ঘোরটা এখনো কাটেনি বিরাট কোহলির। প্রতিদিন সকালে ঘুম থেকে উঠলেই নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সেমিফাইনাল থেকে বাদ পড়ার স্মৃতিটা নাড়া দিয়ে যায় তাকে। তবে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচের আগে কোহলি বলছেন, জীবনের নিয়মে সেটা ভুলে আজ থেকে তারা আবার মাঠে নিজেদের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করবেন।

    জয়ের কাছে গিয়েও বিশ্বকাপের সেমির সেই ম্যাচে শেষ পর্যন্ত নিউজিল্যান্ডের কাছে হারতে হয়েছে ভারতকে। অধিনায়ক হিসেবে বিশ্বকাপটা তাই স্মরণীয় করে রাখতে পারেননি কোহলি। প্রথম কয়েক দিন ধাক্কাটা সামলানো যে খুব কঠিন ছিল সেটা স্বীকার করেছেন ভারত অধিনায়ক, ‘বিশ্বকাপ থেকে বাদ পড়ার পর প্রথম কয়েকটা দিন ছিল বেশ কঠিন। শেষ হওয়ার পর প্রতিতা সকালের অনুভূতিটা ছিল সবচেয়ে বাজে। এরপর আপনার অন্যান্য সব কাজ করতে হয়, জীবন জীবনের নিয়মে কেটে যায়। আমরা পেশাদার, সামনের দিকে তাকাতেই হবে আমাদের। সবাইকেই হয়।’

    সেমিফাইনালে যা হয়েছে সেটা নিয়ে এখন আর আফসোস নেই কোহলির, ‘বিশ্বকাপে যা হয়েছে সেটা আমরা এখন মেনে নিয়েছি। কাল আমরা ফিল্ডিং করেছি, মাঠেও ভালো একটা সময় কাটিয়েছি। সবাই বেশ রোমাঞ্চিত, মাঠে নামার জন্য তর সইছে না কারও। আমার মনে হয় দল হিসেবে সবচেয়ে ভালো হচ্ছে যত দ্রুত সম্ভব আপনার আবার কাজে নেমে পড়া।’

    ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ম্যাচটা হবে ফ্লোরিডার লডারহিলে। বেশ কিছুদিন ধরে যুক্তরাষ্ট্রেই টি-টোয়েন্টি ম্যাচ আয়োজন করে আসছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ বোর্ড। এই সিরিজে অবশ্য বেশ কয়েকজনকে বিশ্রাম দিয়েছে ভারত। ধোনি ও বুমরা নেই বলে টিকিটের চাহিদাও এবার একটু কম। তবে ঋশভ পান্টের মতো নতুন যারা যারা দলে এসেছেন, তাদের জন্য বড় সুযোগ বলেই মনে করছেন কোহলি, ‘পান্টের মতো একজনের বেশ কিছু আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলার এটা দারুণ সুযোগ। এই পর্যায়ে নিজের সম্ভাবনা দেখাতে পারাও। আমরা সবাই জানি ওর সামর্থ্য কতটা, আমরা চাই ভারতের হয়ে ও ধারাবাহিক হোক। ধোনির অভিজ্ঞতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটা দিক, কিন্ত এখনকার অনেক তরুণদের সামনে বড় একটা সুযোগ আছে।’

    তিন বছর আগেও ফ্লোরিডায় এসে টি-টোয়েন্টি খেলেছিল ভারত। সেই দলের কোহলি, রোহিত শর্মা, শিখর ধাওয়ান, কেএল রাহুল, রবীন্দ্র জাদেজা আর ভুবনেশ্বর কুমার- ছয়জন আছেন এবার। আজ অবশ্য বৃষ্টির শংকাও আছে একটু। কোহলি আশা করবেন, আজ সেরকম কিছু হবে না।